করোনা: নতুন রোগী ও মৃত্যু উভয়ই বেড়েছে

মহামারি করোনা ভাইরাস সংক্রমণের প্রকোপ কিছু দেশে কমলেও বাংলাদেশে এখনো ঊর্ধ্বমুখী ধারা অব্যাহত আছে। প্রায় প্রতিদিনই নমুনা পরীক্ষার ২০ শতাংশের ওপরে রোগী শনাক্ত হচ্ছে। নমুনা পরীক্ষার ওপর নির্ভর করে নতুন রোগী শনাক্তের সংখ্যা কম-বেশি হলেও কোভিড-১৯ সংক্রমণ একই ধারায় বাড়ছে।


গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২ হাজার ৯০৭ জন নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে। আগের সাত দিনে দেশে যথাক্রমে ২৪৮৭, ২৬১১, ২৮৫১, ২৯৭৭, ২৬৫৪, ১৯১৮ ও ১৩৫৬ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে।

সর্বশেষ তথ্য অনুসারে- দেশে নভেল করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ লাখ ৬০ হাজার ৫০৭ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে মোট ১২ হাজার ৮৪৯টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। আর পরীক্ষাকৃত এসব নমুনার ২২ দশমিক ৬২ শতাংশের মধ্যে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গেছে।

গতকাল ১০ হাজার ৭৫৯টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল। এখন পর্যন্ত দেশে মোট ১২ লাখ ৭৩ হাজার ১৬৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। আর মোট পরীক্ষার ২০ দশমিক ৪৬ শতাংশ পজেটিভ।

আজ সোমবার (১০ আগস্ট) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে সংস্থাটির অতিরিক্ত মহাপরিচালক ডা. নাসিমা সুলতানা এসব তথ্য জানিয়েছেন।


একনজরে দেশের করোনার চিত্র

নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন: ২৯০৭ জন

মোট আক্রান্তের সংখ্যা: ২৬০৫০৭ জন

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে: ৩৯ জনের

মোট মৃত্যু হয়েছে: ৩৪৩৮ জনের

২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন: ২০৬২ জন

মোট সুস্থ হয়েছেন: ১৫০৪৩২ জন


গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৩৯ জন মারা গেছেন। গত ৩০ জুন দেশে সর্বোচ্চ ৬৪ জনের মৃত্যু হয়েছিল। এরপর ২৬ জুলাই দেশে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৫৪ জনের মৃত্যু হয়। এর আগে গত ১৬ জুন করোনায় মারা গিয়েছিলেন ৫৩ জন।

গত সাত দিনে করোনা ভাইরাসে মারা গেছেন যথাক্রমে ৩৪, ৩২, ২৭, ৩৯ ৩০, ৫০ ও ৩০ জন।

সর্বশেষ তথ্য অনুসারে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ হাজার ৪৩৮ জনে। মোট শনাক্তকৃত রোগীর বিপরীতে মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৩২ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ২ হাজার ৬২ জন সুস্থ হয়েছেন বলে জানানো হয়েছে। দেশে এখন পর্যন্ত করোনা থেকে মোট সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৫০ হাজার ৪৩২ জন। মোট শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৫৭ দশমিক ৭৪ শতাংশ।

অর্থসূচক/কেএসআর