ঈদে মাসুদ সেজানের 'আমার মেয়ে নায়িকা'
মঙ্গলবার, ২রা জুন, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

ঈদে মাসুদ সেজানের ‘আমার মেয়ে নায়িকা’

সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত অক্লান্ত পরিশ্রমে তৈরি হয় একটি নাটক বা সিনেমা। একটি কাজ শেষ করতে দিনের পর দিন ধৈর্য নিয়ে মেধার পাশাপাশি ঘাম ঝরাতে হয় পরিচালকসহ পুরো ইউনিটকে। শুটিংয়ে যদি নায়িকার মা থাকেন, তবে হাজারো সমস্যার মধ্যে পড়তে হয় তাকে নিয়ে।

নায়িকা মেয়েকে মা আগলে রাখেন শিশুর মতোই। শুটিং সেটে মায়ের কাছে যেন জিম্মি হয়ে পড়ে পুরো ইউনিট। সব কিছুতেই যেন নায়িকা মেয়েকে নিয়ে মায়ের একটু বেশি বাড়াবাড়ি। কাজ শেষ করার স্বার্থে মায়ের অত্যাচার সহ্য করেই কাজ করেন তারা।

মানুষের জীবন থেকে গল্প নিয়ে তা হাস্যরসের মাধ্যমে দর্শকের কাছে তুলে ধরেন দর্শকনন্দিত নাট্যকার ও নির্মাতা মাসুদ সেজান। ঈদ উপলক্ষে তিনি নিজের ইউটিউব চ্যানেলে ‘আমার মেয়ে নায়িকা’ শিরোনামের ১০ পর্বের ওয়েব সিরিজ নিয়ে হাজির হচ্ছেন। ‘পার্বণ টিভি ফিকশন’ চ্যানেলে ঈদের দিন থেকে প্রতিদিন রাত ১০টায় দেখা যাবে এটি।

নাটকের গল্প নিয়ে মাসুদ সেজান বলেন, দর্শক সব সময় পর্দায় নাটক-সিনেমা দেখে। ক্যামেরার পেছনের অনেক গল্পই তাঁদের জানা নেই। এই গল্পে আমি দেখাব একটি সেটে নায়িকার মা যদি থাকে, তার যে চাওয়া-পাওয়া। তিনি কীভাবে পুরো ইউনিটকে ব্যতিব্যস্ত রাখেন। মাথায় কতটা চাপ নিয়ে একজন পরিচালককে কাজটি শেষ করতে হয়। ইউনিটের অবস্থাটা কী দাঁড়ায়। মিডিয়ায় এমন কিছু বাস্তব ঘটনার আলোকে, হাস্যরসের মধ্য দিয়ে আমরা গল্পটা টেনে নিয়ে যাব।

অনলাইনে কতটা ব্যবসাসফল হওয়া সম্ভব, জানতে চাইলে সেজান বলেন, ‘আমি আসলে এতটা অনলাইনের ব্যবসা বুঝি না। তবে অনেক দর্শকই দেখি টিভিতে সঠিক সময় নাটকটি দেখতে পারেন না। পরে তাঁরা অনলাইনে দেখেন। একসময় টিভিতে ভালো বাজেট ছিল, এখন অনলাইনে ভালো বাজেটে নাটক নির্মাণ হচ্ছে। পাশাপাশি কোনো বাধ্যবাধকতা ছাড়াই আমি নিজের মতো গল্প বলতে পারছি। আশা করি, ভালো কিছু হবে। ব্যবসাও ভালো হবে বলে আশা করছি।’

নাটকের মান নিয়ে জানতে চাইলে মাসুদ সেজান বলেন, ‘ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই নাটকের মান নিয়ে আমি সচেতন। মাসুদ সেজানের নাটক দর্শক যে মানের দেখেন বা প্রত্যাশা করেন, আমি তা পূরণ করেই কাজ করি। সস্তা হাস্যরসের গল্প নিয়ে আমি কখনোই কাজ করিনি। কোনদিন করার ইচ্ছে নেই। অনলাইনের আরেকটা সুবিধা হচ্ছে, আমি আমার মতো কাজটি করতে পারছি। শিল্পী নির্বাচনসহ পুরো কাজটি আমার মতো হচ্ছে। তথাকথিত তারকা নিয়ে কাজ করতে হচ্ছে না। গল্পের চরিত্র অনুযায়ী শিল্পী নির্বাচন করতে পারছি। যে কারণে মান নিয়ে কোন আপস করতে হচ্ছে না।’

‘আমার মেয়ে নায়িকা’ সিরিজে অভিনয় করেছেন শামীমা নাজনীন, মুসাফির সৈয়দ, সিফাত, ইকবাল হোসেন, সাজ্জাদ রেজা, নকুল কুমার মণ্ডল, আল আমিন সবুজ ও সংগীতশিল্পী মিলন মাহমুদ।

অর্থসূচক/এএইচআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ