পুষ্প সাহার পুকুর ভরাট ও দখলমুক্ত করার দাবি

পুষ্প সাহা পুকুর ভরাট ও দখলমুক্ত করার দাবিতে নাগরিক সমাবেশ
পুষ্প সাহা পুকুর ভরাট ও দখলমুক্ত করার দাবিতে নাগরিক সমাবেশ
পুষ্প সাহা পুকুর ভরাট ও দখলমুক্ত করার দাবিতে নাগরিক সমাবেশ

অবিলম্বে সরকারিভাবে পুষ্প সাহা পুকুর ভরাট ও দখলমুক্ত না করলে এলাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে তা ভরাট ও দখলমুক্ত করার দাবি জানিয়েছেন পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা) সহ কয়েকটি সংগঠন।

শুক্রবার সকাল ১১টায় পুষ্প সাহার পুকুর পাড়ে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা), গ্রীণমাইন্ড সোসাইটি ও পুষ্প সাহা পুকুর রক্ষা কমিটির যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এক নাগরিক সমাবেশ থেকে উক্ত ঘোষণা দেওয়া হয়।

জানা যায়, লালবাগ থানার অন্তর্গত আমলীগোলা জগন্নাথ সাহা রোড়ের পুষ্প সাহা পুকুরটি একটি গুরুত্বপূর্ণ ও ঐতিহ্যবাহী পুকুর। শহীদনগর, চৌধুরীবাজার, ঋষিপাড়া, বৌদ্ধপাড়া, ডুরি আঙ্গুল, নবাবগঞ্জ ও বালুঘাট এলাকার বৃষ্টির পানি ধারণের একমাত্র আধার এবং মানুষের গৃহস্থালি কাজের পানি এবং পুরান ঢাকার মতো ঘনবসতিপূর্ণ এলাকার পরিবেশের প্রয়োজনে ভূমিকা রেখে আসছে এই পুকুরটি। কিন্তু সরকারি নজরদারির অভাবে ভরাট এবং দখলের প্রক্রিয়ায় জনগুরুত্বপূর্ণ এই পুকুরটি তার অস্তিত্ব হারিয়ে ফেলতে চলেছে।

সমাবেশ থেকে জানানো হয়, পুষ্প সাহা পুকুরটি কেবল সরকারি উদ্যোগের অভাব এবং অবহেলায় ভরাট ও দখলের প্রক্রিয়ায় নি:শেষ হয়ে যাবে এটা কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায় না। সরকারি উদ্যোগে পুষ্পসাহা পুকুর থেকে সকল বর্জ্য অপসারণ এবং অবৈধ দখলমুক্ত করে অবিলম্বে জনসাধারণের ব্যবহার উপযোগী না করলে পবা এলাকাবাসীকে নিয়ে পুষ্প সাহা পুকুর দখল ও ভরাট মুক্ত করবে।

পবার যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ মনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে নাগরিক সমাবেশে বক্তব্য রাখেন পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খান, নির্বাহী সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী মো. আবদুস সোবহান, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আসলাম খান, হাফিজুর রহমান ময়না, গ্রীণমাইন্ড সোসাইটির সভাপতি আমির হাসান, বাংলাদেশ পীস মুভমেন্টের সভাপতি অধ্যাপক কামাল আতাউর রহমান, পুষ্প সাহা পুকুর রক্ষা কমিটির আহবায়ক মো. সায়েমুল ইসলাম, পুকুর ব্যবহারকারী এলাকাবাসী হাজী আওয়াল প্রমুখ।