জনসন বেবি পাউডার বিক্রি বন্ধ যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায়
সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

জনসন বেবি পাউডার বিক্রি বন্ধ যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায়

যুক্তরাষ্ট্র এবং কানাডায় বেবি পাউডার বিক্রি করা বন্ধ করার পথে জনসন অ্যান্ড জনসন। এই প্রতিষ্ঠানের তৈরি বেবি পাউডারে ক্ষতিকর অ্যাসবেস্টস থাকার অসংখ্য অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে মামলা চলছে। যার জেরে যুক্তরাষ্ট্র এবং কানাডায় বেবি পাউডার বিক্রি বন্ধ হতে চলছে বলে জানিয়েছে এই বহুজাতিক সংস্থাটি।

জনসন অ্যান্ড জনসনের পক্ষ থেকে জানিয়েছে, তাদের বেবি পাউডারের গুণগত মান সম্পর্কে বাজারে অপপ্রচার চালানো হয়েছে। যার জেরে আমেরিকা এবং কানাডায় বেবি পাউডারের চাহিদা শূন্যে নেমে এসেছে। এই দুই দেশে তাদের এই পণ্য বিক্রি বন্ধের কারণ হিসেবে এই বিষয়টিকেই সামনে এনেছে তারা।

জনসনের বেবি পাউডারে ক্ষতিকারক অ্যাসবেস্টস থাকার একের পর এক ঘটনা ১৯৭১ সাল থেকে সামনে আসতে থাকে। তাদের বিরুদ্ধে এই ধরনের ১৯ হাজার মামলা চলছে। গত বছরের অক্টোবরেও যুক্তরাষ্ট্রে জনসন অ্যান্ড জনসনের বেবি পাউডারে ক্ষতিকারক অ্যাসবেস্টসের উপস্থিতির প্রমাণ পাওয়া যায়। নিয়মিত অ্যাসবেস্টসযুক্ত এই পাউডারের ব্যবহারে ক্যানসার হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এ কারণে এর আগে আইনি চাপে বাধ্য হয়ে বাজার থেকে ৩৩ হাজার বোতল বেবি পাউডার তুলে নিতে বাধ্য হয় তারা। তবে শিশু-দ্রব্যের খ্যাতনামা এই সংস্থাটি কখনই এসব অভিযোগ স্বীকার করেনি। তারা বরাবর এই অভিযোগকে অপপ্রচার হিসেবে আখ্যায়িত করেছে।

এরপর ২০১৮ সালের ১৪ ডিসেম্বর প্রথম বার্তা সংস্থা রয়টার্স জনসনের বেবি পাউডারে ক্ষতিকারক অ্যাসবেস্টসের উপস্থিতির বিষয়টি জনসমক্ষে আনে। রয়টার্সে এই তথ্য প্রকাশের পর বিশ্বজুড়ে বিপুল ধাক্কা খায় জনসনের ব্যবসা। তাদের বাজার দর দ্রুত পড়ে যেতে থাকে। সূত্র: বিবিসি

অর্থসূচক/এসএস/এএইচআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ