করোনায় মৃতের সংখ্যা প্রায় ৩৪ হাজার
সোমবার, ২৫শে মে, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

করোনায় মৃতের সংখ্যা প্রায় ৩৪ হাজার

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) মৃত্যুর সংখ্যা হু হু করেই বেড়েই চলছে। ভাইরাসটিতে ১৯৯টি দেশ ও অঞ্চলের মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। আক্রান্ত দেশগুলোর মধ্যে ইতালি ও স্পেনের অবস্থা খুবই ভয়াবহ। এখন পর্যন্ত ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছে প্রায় সাত লাখ ২০ হাজার মানুষ। এদের মধ্যে এক লাখ ৫০ হাজার ৯১৮ জন সুস্থ হয়েছেন। এছাড়া আক্রান্ত হয়ে বিশ্বজুড়ে প্রায় ৩৪ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল যা ৩০ হাজার ছাড়ায়।

আন্তর্জাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটারস ডট ইনফোর হিসাব অনুযায়ী, ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ৩৩ হাজার ৯০৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটি অ্যান্ড মেডিসিনের করোনা ভাইরাস রিসোর্স সেন্টারের হিসাবে দেখা যায়, করোনায় আক্রান্ত হয়ে এই পর্যন্ত প্রায় ৩৩ হাজার ৮৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে।

চীনে প্রাদুর্ভাব শুরু হলেও সেখানকার পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক হচ্ছে ধীরে ধীরে। ভাইরাসটি প্রাদুর্ভাবের নতুন কেন্দ্র হিসেবে পরিচিত হতে থাকা যুক্তরাষ্ট্রে ১ লাখ ৪১ হাজারের বেশি আক্রান্ত। করোনায় প্রাণহানিতে চীনকে অনেক আগেই ছাড়িয়ে গেছে ইতালি এবং স্পেন। ইউরোপের বাকি দেশগুলোর অবস্থাও ভয়াবহ।

এদিকে স্পেন আজ সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড করেছে। তার মধ্যে ইতালিতে মৃত্যুর সংখ্যাটা এখন ১১ হাজার ছুঁই ছুঁই। গত ২৪ ঘণ্টায় ইতালিতে মারা গেছেন ৮৩২ জন। এখন পর্যন্ত দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৯৭ হাজার ৬৮৯ ও মৃত্যু হয়েছে ১০ হাজা ৭৭৯ জনের। এছাড়া এখন পর্যন্ত দেশটিতে মোট ১৩ হাজার ৩০ করোনা রোগী সুস্থ হয়েছেন।

করোনায় বিপর্যস্ত ইতালিতে রোগীদের চিকিৎসাসেবা দিতে গিয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত ৫১ চিকিৎসক। সংক্রমিত হয়েছেন ৬ হাজারেও বেশি স্বাস্থ্যকর্মী। যা দেশের মোট আক্রান্ত রোগীর প্রায় ৮ দশমিক ৩ শতাংশ।

এছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি অঙ্গরাজ্যের সবগুলোতেই করোনার প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে। তবে এখন পর্যন করোনায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে নিউ ইয়র্ক অঙ্গরাজ্য। সেখানেই আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি।

নিউ ইয়র্ক অঙ্গরাজ্যের গভর্নর অ্যান্ড্রু কুওমো জানিয়েছেন, গত একদিনে ২৩৭ মৃত্যু নিয়ে শুধু নিউ ইয়র্কেই কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত ৯৬৫ জন মারা গেছে। এই প্রাণঘাতী ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পর একদিনে এত মৃত্যু দেখেনি নিউ ইয়র্ক।

অর্থসূচক/এএইচআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ