শরীরের মেদ কমানোর সঠিক কৌশল
শুক্রবার, ৩রা জুলাই, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

শরীরের মেদ কমানোর সঠিক কৌশল

শহুরে জীবনে দীর্ঘ সময় বসে বসে কাজ করার কারণে ও দৈহিক পরিশ্রম কম করার কারণে পেটে মেদ জমে যাওয়া খুব সাধারণ একটা ব্যাপার। কিন্তু যত সহজে পেটে মেদ জমে, এটাকে আগের অবস্থায় ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়াটা যেন ততটাই কঠিন।

 

ছোট্ট কিছু কৌশল জানা থাকলে আর প্রতিদিনকার কিছু সহজ অভ্যাসের মাধ্যমে আপনি নিজেই কমিয়ে ফেলতে পারবেন আপনার পেটের এই বাড়িতি মেদ ভুঁড়ি! জিমে গিয়ে টাকা নষ্ট করার কোন দরকারই নেই।

১. মেদ বা পেট কমানোর সঠিক পদ্ধতি

রোজ সকালে এক গ্লাস গরম পানির লেবুর শরবত
হ্যাঁ! কিন্তু একেবারেই চিনি ছাড়া। এক গ্লাস গরম পানিতে অর্ধেকটা লেবু চিপে নিন, এতে এক চিমটি লবণ মিশিয়ে নিন। এবার পান করুন সকালে ঘুম থেকে উঠেই আর রাতে ঘুমুতে যাবার ঠিক আগে। এটি আপনার দেহের

২. বাড়তি মেদ ও চর্বি কমাতে সবচেয়ে ভালো কিছু উপায়

সাদা ভাতের বদলে লাল চালের ভাত
সাদা ভাতের বদলে বেছে নিতে পারেন লাল চালের ভাত, ব্রাউন ব্রেড, আটার রুটি। এতে আপনার দেহে ক্যালোরি অতিরিক্ত ঢুকবে না। পেটে জমা চর্বি কমে আসবে ধীরে ধীরে।

মিষ্টিযুক্ত খাবার একেবারেই না
মিষ্টি, মিষ্টিজাতীয় খাবার, কোল্ড ড্রিঙ্কস এবং তেলে ভাজা স্ন্যাক্স থেক ১০০ হাত দূরে থাকুন। কেননা এ জাতীয় খাবারগুলো আপনার শরীরের বিভিন্ন অংশে, বিশেষত পেট ও উরুতে খুব দ্রুত চর্বি জমিয়ে ফেলে। তাই এগুলো খাওয়ার চেয়ে ফল খাওয়াটাই উত্তম।

প্রচুর পানি পান করা
প্রতিদিন প্রচুর পানি পান করার ফলে এটা আপনার দেহের মেটাবলিজম বাড়ায় ও রক্তের ক্ষতিকর উপাদান প্রস্রাবের সাথে বের করে দেয়। মেটাবলিজম বাড়ার ফলে দেহে চর্বি জমতে পারে না ও বাড়তি চর্বি ঝরে যায়। চেষ্টা করবেন বরফ ঠান্ডা পানি না পান করে, খানিকটা উষ্ণ পানি পান করার।

রোজ তিন কোয়া রসুন
রোজ সকালে উঠেই খালি পেটে ২/৩ কোয়া রসুন চিবিয়ে খেয়ে নিন, এর ঠিক পর পরই পান করুন লেবুর রস। এটি আপনার পেটের চর্বি কমাতে দ্বিগুণ দ্রুতগতিতে কাজ করবে। তাছাড়া দেহের রক্ত চলাচলকে আরো বেশী সহজ করবে এটি।

মসলা খান
রান্নায় অতিরিক্ত মশলা ব্যবহার করা ঠিক নয়। কিন্তু আপনি কি জানেন কিছু মশলা আপনার ওজন কমাতে সাহায্য করে ম্যাজিকের মতন? রান্নার ব্যবহার করুন দারুচিনি, আদা ও গোলমরিচ। এগুলো আপনার রক্তে শর্করার পরিমাণ কমাবে ও পেটের মেদ কমাতে সাহায্য করবে।

প্রচুর ফল ও সবজি
প্রতিদিন সকাল ও সন্ধ্যায় এক বাটি ভর্তি ফল ও সবজি খাবার চেষ্টা করুন। এতে আপনার শরীর পাবে প্রচুর পরিমাণে এন্টি অক্সিডেন্ট, মিনারেল ও ভিটামিন। আর এগুলো আপনার রক্তের মেটাবলিজম বাড়িয়ে পেটের চর্বি কমিয়ে আনবে সহজেই।

মাংস থেকে দূরে থাকুন
বিশেষত অতিরিক্ত চর্বিযুক্ত গরু ও খাসির মাংস যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলুন। এর বদলে বেছে নিতে পারেন কম তেলে রান্না করা মাছ।

ব্যায়াম করার সময় নেই তো কী হয়েছে, তাই বলে কি ভুঁড়ি কমবে না? আজ থেকেই মেনে চলুন উপরের নিয়মগুলো আর ফিরে পান আপনার মেদহীন সুন্দর স্বাস্থ্য।

অর্থসূচক/এনএম

এই বিভাগের আরো সংবাদ