হিসাব মহানিয়ন্ত্রক কার্যালয়ের প্রোগ্রামার চাকরিচ্যুত
সোমবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page
সরকারি কোষাগারের কোটি টাকা জালিয়াতি

হিসাব মহানিয়ন্ত্রক কার্যালয়ের প্রোগ্রামার চাকরিচ্যুত

ডাচ-বাংলা ব্যাংকের মিরপুর শাখার ছয়টি ব্যক্তিগত ব্যাংক অ্যাকাউন্টে সরকারি কোষাগার থেকে ১ কোটি ২৭ লাখ টাকা জালিয়াতির মাধ্যমে স্থানান্তরের প্রমাণ পাওয়া গেছে। এ কারণে হিসাব মহানিয়ন্ত্রকের কার্যালয়ের (সিজিএ) প্রোগ্রামার মো. সিদ্দিকুর রহমানকে চাকরিচ্যুত করেছে সরকার। এর আগে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছিল।

আজ বুধবার অর্থ মন্ত্রণালয় থেকে জারিকৃত প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। অর্থসচিব আব্দুর রউফ তালুকদার গত ৮ জানুয়ারি এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপনটি স্বাক্ষর করেন।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, হিসাব মহানিয়ন্ত্রকের কার্যালয় (সিজিএ) ঢাকা এর প্রোগ্রামার মো. সিদ্দিকুর রহমানের (সাময়িকভাবে বরখাস্ত) বিরুদ্ধে প্রোগ্রামার হিসেবে কর্মরত থাকাকালীন তার সহযোগিতায় অর্থ বিভাগের প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয়ের এসএএস সুপার মো. শরিফুল ইসলাম (সাময়িকভাবে বরখাস্ত) কর্তৃক ১ কোটি ২৭ লাখ টাকা জালিয়াতির অভিযোগ রয়েছে। ইলেক্ট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার (ইএফটি) পদ্ধতিতে সরকারি কোষাগার থেকে ডাচ-বাংলা ব্যাংকের মিরপুর শাখায় শরিফুল ইসলাম নিকটাত্মীয় স্বজনের নামে ছয়টি ব্যাংক অ্যাকাউন্টে মোট ১ কোটি ২৭ লাখ টাকা জালিয়াতির মাধ্যমে স্থানান্তর করে।

মো. সিদ্দিকুর রহমান প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয়ের সুপার মো. শরিফুল ইসলামের সাথে যোগসাজশে ডাটাবেজ সিস্টেমের আইবাস ইউজার ও পাসওয়ার্ড ব্যবহার করে ব্যাক অ্যান্ড (Back end) থেকে ওই অর্থ স্থানান্তর-সংক্রান্ত ডাটা মুছে দিতে সহায়তা করেন।

এ সংশ্লিষ্ট তথ্য মুছে ফেলা ও সরকারি কোষাগার থেকে ১ কোটি ২৭ লাখ টাকা আত্মসাতে সহযোগিতা করেন বিধায় প্রোগ্রামার মো. সিদ্দিকুর রহমানকে (সাময়িকভাবে বরখাস্ত) সরকারি কর্মচারী (শৃংখলা ও আপিল) বিধিমালা, ১৯৮৫ এর ৩ (ডি) অনুযায়ী {বর্তমানে সরকারি কর্মচারী (শৃঙ্খলা ও আপিল) বিধিমালা, ২০১৮ এর ৩ (ঘ)} অভিযুক্ত করে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা রুজু করা হয়।

অর্থসূচক/কেএসআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ