শীতে গরম পানিতে গোসল করলে যেসব ক্ষতি হয়!
বুধবার, ২৯শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

শীতে গরম পানিতে গোসল করলে যেসব ক্ষতি হয়!

বর্তমানে বাংলাদেশে যে পরিমান শীত দেখা দিয়েছে তাতে করে অনেকেরই ঠাণ্ডা পানিতে গোসল করা কষ্টসাধ্য ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে।

ডিসেম্বরের অর্ধেক মাসজুড়েই ছিল শীতের তীব্র প্রকোপ। নতুন বছরে এসে শীতের তীব্রতা অনেকটা কমলেও আরও তিনটি ভয়াবহ শৈত্যপ্রবাহ অপেক্ষা করছে দেশবাসীর জন্য। এমনটি জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। ইতোমধ্যে সারা দেশে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি পড়ে শীত ভোগান্তি দ্বিগুণ করেছে। এমনতাবস্থায় শীতকাতুড়ে আর ঠাণ্ডাজনিত রোগ যাদের পিছু ছাড়ে না তাদের জন্য গোসল একটি বাড়তি বিড়ম্বনা। শীতে গোসল কষ্ট থেকে বাঁচতে গরম পানিতে আস্থা প্রায় সবার। তবে এটি যে শরীরে বিরূপ প্রভাব ফেলতে পারে তা হয়তো জানেন না অনেকেই।

ফলে অনেকেই নিয়মিত গোসল করা থেকেও বিরত থাকছেন। আবার অনেকে গরম পানি ব্যবহার করে গোসল সেরে নিচ্ছেন। কিন্তু আমাদের জানা উচিৎ গরম পানিতে গোসল করলে অনেক বড় ধরনের ক্ষতি হতে পারে।

চর্মবিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, গরম পানি দিয়ে গোসল শরীরের জন্য কখনই ভালো কিছু বয়ে আনে না। নিয়মিত কেউ গরম পানিতে গোসল করলে মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে।

আসুন জেনে নিই গরম পানিতে গোসল করলে কি কি ক্ষতি হয়….

১. গরম পানিতে গোসলের অভ্যাসের কারণে ফার্টিলিটি হ্রাস পায়। এতে পুরুষের সন্তান জন্মদানের ক্ষমতা কমে যায়।

২. গরম পানিতে গোসল করলে ত্বকের আর্দ্রতা দ্রুত হারিয়ে যায়।

৩. গরম পানি শরীরে পরা মাত্র রক্তচাপে হেরফের হতে শুরু করে। ফলে শরীরের কর্মক্ষমতা কমে গিয়ে মাথা ঘোরা, গা গোলানোর মতো লক্ষণ দেখা দিতে থাকে।

৪. গরম পানি দিয়ে নিয়মিত গোসল ত্বকের ফলিকলগুলোকে নষ্ট করে দেয়। পানি কুসুম গরম না হয়ে একটু বেশি গরম হয়ে গেলে তা আরও বিপজ্জনক। মাথায় অতিরিক্ত গরম পানির ব্যবহারে চুল ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এছাড়া মস্তিস্কের ওপরে চাপ সৃষ্টি হয়। রক্তচাপও বাড়িয়ে দেয়।

৫. অতিরিক্ত গরম পানি ব্যবহার করলে মুখে ব্রণ হয়। অ্যাসিডিটির সমস্যা যাদেরও তাদেরকে গরম পানি পরিহার করতে পরামর্শও দিয়েছেন চিকিৎসকরা।

হৃদরোগ বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ

যারা হার্টের সমস্যায় ভুগছেন তাদের গরম পানি দিয়ে গোসল করা ঝুঁকিপূর্ণ। কারণ গরম পানি কার্ডিওভাসকুলার সিস্টেমের ওপর প্রভাব ফেলে। এছাড়া গরম পানি দিয়ে গোসল করলে মানসিক বিষণ্ণতায় ভোগা ব্যক্তিদের ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। এসব কারণেই মাথায় ঠাণ্ডা পানির ব্যবহার করতে ও গরম পানি দিয়ে গোসলে অভ্যাস না করতে পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

তবে ৪-৫ ডিগ্রি তাপমাত্রায় ঠাণ্ডা পানি দিয়ে গোসল করা কঠিন। এক্ষেত্রে টনসিল, সর্দি, কাশি প্রভৃতি বিভিন্ন শারীরিক উপসর্গ দেখা দেয়। সেজন্য অতিরিক্ত গরমও নয় আবার ঠাণ্ডাও নয় প্রত্যেককে কুসুম গরম পানিতে গোসল করার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

এতে শরীরের রক্ত চলাচলের বৃদ্ধি ঘটে এবং অনিদ্রাজনিত সমস্যা দূর হয়। শীতকালীন সর্দি-কাশি উপসর্গ থেকেও রক্ষা পাওয়া যায়।

এই বিভাগের আরো সংবাদ