ভারতে চিকিৎসক ধর্ষণ মামলার ৪ অভিযুক্তকে গুলি করে হত্যা
সোমবার, ২০শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

ভারতে চিকিৎসক ধর্ষণ মামলার ৪ অভিযুক্তকে গুলি করে হত্যা

ভারতের দক্ষিণাঞ্চলীয় প্রদেশ তেলেঙ্গানার রাজধানী হায়দারাবাদে গণধর্ষণের পর তরুণী পশু-চিকিৎসক হত্যায় অভিযুক্ত চারজনকে গুলি করে হত্যা করেছে পুলিশ।

আজ শুক্রবার সকালে আটক চারজনকে ‘তদন্তের স্বার্থে’ যে স্থান থেকে ওই চিকিৎসকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছিল সেখানে নিয়ে যাওয়া হয়। এ সময় পুলিশ হেফাজত থেকে পালাতে গিয়ে গুলিতে তারা নিহত হন বলে টাইমস অব ইন্ডিয়ার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

পুলিশের দাবি, ঘটনাস্থল সাদনগর মহাসড়কে তাদের অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করলে দুপক্ষের সংঘর্ষের এক পর্যায়ে গুলিতে নিহত হয় আসামিরা। যে জায়গাটিতে চিকিৎসককে পুড়িয়ে হত্যা করা হয় সেখান থেকে কয়েক মিটার দূরে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- মোহাম্মদ আরিফ, নবীন, শিব ও চেন্নাকসভুলু।

গত ২৭ নভেম্বর রাতে ভারতের তেলেঙ্গানার রাজধানী হায়দরাবাদের অদূরে কর্মস্থল থেকে ফেরার পথে এক তরুণী চিকিৎসককে চার ট্রাকচালক ও ক্লিনার কৌশলে নিজেদের ফাঁদে ফেলে গণধর্ষণ করে। এরপর খুন করে পেট্রোল-ডিজেল ঢেলে পুড়িয়ে দিয়েছিল তরুণীর মরদেহ। ২৯ নভেম্বর অভিযুক্ত চারজনকেই গ্রেফতার করে তেলেঙ্গানা পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, বুধবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে স্থানীয় টোল প্লাজায় প্রিয়াংকাকে স্কুটি নিয়ে দাঁড়ানো অবস্থায় দেখে ছককষে অভিযুক্ত যুবকরা। পরে প্রিয়াংকার অনুপস্থিতিতে স্কুটির টায়ার পাঙচার করে দেয় তারা। পরে প্রিয়াংকা ফিরে এলে স্কুটি ঠিক করে দেওয়ার নাম করে ফাঁকা জায়গায় নিয়ে যায় ট্রাকচালক আরিফ ও তার সহকারী শিবা। এরপর পানিতে মদ মিশিয়ে জোর করে তাকে পান করানো হয়। এর এক ঘণ্টার মধ্যেই তাকে ধর্ষণের পর হত্যা করে তারা। দেহ পোড়াতে তার স্কুটির জ্বালানি ব্যবহার করা হয়েছিল বলেও অভিযোগ ওঠে।

গত সপ্তাহে ভারতে বেশ কয়েকটি ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনা সামনে এসেছে। ঝাড়খণ্ডে ধর্ষণ ও হত্যার শিকার হয়েছেন এক নারী আইনজীবী। ৫ ডিসেম্বর নিজের দায়ের করা ধর্ষণ মামলার শুনানিতে আদালতে যাওয়ার পথে উত্তরপ্রদেশের উন্নাও-এর ওই নারীর গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয় অভিযুক্তরা। এছাড়া ধর্ষণের পর রাজস্থানে ছয় বছরের এক শিশুকে হত্যা করা হয়েছে। ধর্ষণের পর হত্যার এসব ঘটনায় ফুঁসছে ভারত। দোষীদের বিচারের দাবিতে উত্তাল দিল্লি, বেঙ্গালুরু ও কলকাতাসহ বিভিন্ন শহর। ক্ষোভের ঝড় উঠেছে দেশটির পার্লামেন্টেও। বিক্ষোভকারীরা যৌন নিপীড়নের ঘটনায় দ্রুততম বিচার ও সাজার মেয়াদ বৃদ্ধির দাবি জানিয়েছে।

অর্থসূচক/এএইচআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ