শিক্ষা অধিদপ্তরের ঠিকাদার শফিকুরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা
মঙ্গলবার, ৯ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

শিক্ষা অধিদপ্তরের ঠিকাদার শফিকুরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

১৪ কোটি ৪১ লাখ টাকা অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের ঠিকাদার শফিকুর রহমানের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

আজ বৃহস্পতিবার ঢাকা সমন্বিত জেলা কার্যালয়-১ এ মামলাটি করা হয়েছে বলে দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য জানিয়েছেন।

মামলার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে অসৎ উদ্দেশ্যে বিভিন্ন অবৈধ ব্যবসা ও অবৈধ কার্যক্রমের মাধ্যমে ১৪ কোটি ৪১ লাখ ১৮ হাজার ১৩২ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ আনা হয়েছে। দুর্নীতি দমন কমিশন আইন ২০০৪ এর ২৭(১) ধারায় এটা শাস্তিযোগ্য অপরাধ বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

মামলার অনুসন্ধান-তথ্য প্রমাণে দেখা যায়, আসামী শফিকুল ইসলাম সর্বশেষ ২০১৮-২০১৯ করবর্ষ পর্যন্ত তার আয়কর নথিতে মোট ৭ কোটি ১২ লাখ ৩৭ হাজার ৯৪৪ টাকার স্থাবর সম্পদ প্রদর্শন করলেও পারিপার্শ্বিক তথ্যাদি পর্যালোচনায় বর্ণিত সম্পদ সমূহের অর্জনমূল্য আরও অনেক বেশি। অনুসন্ধানকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও প্রাপ্ত রেকর্ডপত্র পর্যালোচনায় অভিযোগ সংশ্লিষ্ট শফিকুল ইসলামের অর্জিত টাকার স্থাবর সম্পদ অর্জনের সপক্ষে সুনির্দিষ্ট আয়ের কোন বৈধ উৎস পাওয়া যায়নি।

শফিকুল ইসলাম বিভিন্ন অবৈধ পন্থায় নামে বেনামে দেশে-বিদেশে বিপুল পরিমাণ অর্থ সম্পদ অর্জন করেছেন। সঠিক তথ্য পেলে তার আয়ের পরিমান আরো বাড়বে বলে দুদক জানায়। এছাড়া তার স্ত্রী-সন্তান বা অন্য কোন ব্যক্তির নামে আরও সম্পদ অর্জন করেছেন কি-না সে বিষয়েও তদন্ত করছে দুদক।

এর আগে গত ১৭ নভেম্বর বাংলাদেশ ফিন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিটে (বিএফআইইউ) পাঠানো চিঠিতে ঠিকাদার মো. শফিকুল ইসলামের ব্যাংক হিসাব তলব করেছিল দুদক।

অর্থসূচক/এমআরএম/কেএসআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ