রংপুর-৩ উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণ শুরু
বৃহস্পতিবার, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

রংপুর-৩ উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণ শুরু

রংপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। আজ শনিবার (৫ অক্টোবর) সকাল ৯টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। তবে সকালে কেন্দ্রগুলোতে ভোটার উপস্থিতি কম লক্ষ্য করা গেছে। সকাল ৯টার আগ মুহূর্তে কামারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ১০ থেকে ১১ জন ভোটার দেখা গেছে। এছাড়া বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ভোটকেন্দ্রে দেখা গেছে পাঁচজন ভোটার।

ভোটগ্রহণ উপলক্ষে ইতোমধ্যেই সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে রংপুরের আঞ্চলিক নির্বাচন কমিশন অফিস। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকেও প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এর আগে, গত বৃহস্পতিবার সব কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম)। আর শুক্রবার (৪ অক্টোবর) কেন্দ্রে-কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে বাকি নির্বাচনি সরঞ্জাম।

শুক্রবার সন্ধ্যায় সংবাদ সম্মেলনে উপ-নির্বাচনের সার্বিক প্রস্তুতি গণমাধ্যমের সামনে তুলে ধরেন রিটার্নিং কর্মকর্তা ও রংপুরের আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম শাহাতাব উদ্দিন। আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান রংপুরে কর্মরত র‌্যাব-১৩ এর কমান্ডার রেজা ফেরদৌস আহমেদ।

সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া রংপুর-৩ (সদর) আসনের ভোটার সংখ্যা ৪ লাখ ৪১ হাজার ২২৪ জন। এই নির্বাচনে সবকেন্দ্রে ইভিএমে ভোট নেওয়া হবে।

রিটার্নিং কর্মকর্তা শাহাতাব উদ্দিন বলেন, সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে নেওয়া হয়েছে চার স্তরের কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা। সব কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টিম। ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার দায়িত্বও তাদের বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার সব কেন্দ্রে আয়োজন করা হয় মক (ডামি) ভোটের।

তিনি বলেন, নির্বাচন নিয়ে কোনও ধরনের সহিংসতা বা অপ্রীতিকর ঘটনা প্রতিরোধে কমিশন সদা সতর্ক। একটি কন্ট্রোল সেন্টার খোলা হয়েছে, যেখান থেকে পুরো আসনের নির্বাচনি পরিস্থিতি সার্বক্ষণিক মনিটরিং করা হবে। কোনও কেন্দ্রে ভোটার কিংবা প্রার্থীদের এজেন্টকে ঢুকতে না দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেলে সে কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হবে।

উল্লেখ্য, সুষ্ঠু ভোটগ্রহণের স্বার্থে প্রতিটি কেন্দ্রে চারজন পুলিশ, আনসার সদস্য ছয় জন, দুই জন মহিলা আনসার নিয়োজিত করা হয়েছে। পুরো আসনে ১৮ প্লাটুন বিজিবি’র পাশাপাশি র্যা বও টহল দেবে। এছাড়া ২৪ জন ম্যাজিট্রেট পুরো নির্বাচনি আসনে দায়িত্ব পালন করবেন।

এ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী রাহগির আলমাহি সাদ এরশাদ (লাঙল), বিএনপি মনোনীত প্রার্থী রিটা রহমান (ধানের শীষ), স্বতন্ত্র প্রার্থী এরশাদের ভাতিজা হোসেন মকবুল শাহরিয়ার আসিফ (মটরগাড়ি), এনপিপির শফিউল আলম (আম), গণফ্রন্টের কাজী মো. শহীদুল্লাহ বায়েজিদ (মাছ) এবং খেলাফত মজলিসের তৌহিদুর রহমান মন্ডল (দেয়াল ঘড়ি) প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

অর্থসূচক/কেএসআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ