হজ শেষে স্বামীর লাশ রেখেই কাঁদতে কাঁদতে ফ্লাইটে উঠলেন স্ত্রী
সোমবার, ১৩ জুলাই, ২০২০
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

হজ শেষে স্বামীর লাশ রেখেই কাঁদতে কাঁদতে ফ্লাইটে উঠলেন স্ত্রী

সারাজীবনের স্বপ্ন ছিলো স্বামী-স্ত্রী একসঙ্গে পবিত্র হজ পালন করবেন। সেই উদ্দেশ্যে স্ত্রীকে নিয়ে সৌদি আরব যান নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ের বাসিন্দা মোহাম্মদ শাহজালাল। কোনো ঝামেলা ছাড়াই সস্ত্রীক হজ পালন করেন তিনি। গত ১৮ আগস্ট জেদ্দা বিমানবন্দর থেকে একটি ফ্লাইটে তাদের দেশে ফেরার কথা ছিল। কিন্তু স্ত্রী ফিরলেও দেশে ফিরতে পারেননি শাহজালাল।

গত ১৭ আগস্ট সহধর্মিণীকে নিয়ে দেশে ফেরার পথে সৌদি আরবের জেদ্দা বিমানবন্দরে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন মোহাম্মদ শাহজালাল।

এ দিন মক্কা থেকে বাসযোগে জেদ্দা বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পরপরই তার বুকে ব্যথা ওঠে। এরপর তাকে দ্রুত বাংলাদেশ হজ ক্লিনিকে নেয়া হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য মক্কায় বাদশা ফয়সাল হাসপাতালে নেয়ার পথে শাহজালালের মৃত্যু হয়।

বিমানবন্দরে বসে স্বামীর মৃত্যুর সংবাদ পান স্ত্রী। সৌদি সরকারের নিয়ম অনুযায়ী কোনো হজযাত্রী মারা গেলে হজ মিশন বাংলাদেশের সার্বিক তত্ত্বাবধানে মরদেহ সে দেশের কবরস্থানে দাফন করা হয়।

ফলে শাহজালালের মরদেহ রেখেই কাঁদতে কাঁদতে ফ্লাইটে উঠে দেশে ফেরার উদ্দেশ্যে রওনা দেন তার স্ত্রী। পেছনে পড়ে থাকে সারা জীবনের স্মৃতি।

জেদ্দা বিমানবন্দরে কর্মরত ধর্ম মন্ত্রণালয়ের একাধিক কর্মকর্তা ও বেসরকারি হজ এজেন্সি সূত্রে জানা গেছে, গত ১৭ আগস্ট সৌদি স্থানীয় সময় রাত আনুমানিক সাড়ে সাতটার দিকে মো. শাহ জালাল নামে ওই হজযাত্রীর মৃত্যু হয়। তার পাসপোর্ট নম্বর বি ওয়াই ০১০৯২৫৭ ও পিলগ্রিম আইডি নাম্বার ০৯৩৮০৭৮। চলতি বছর দেশে ফেরার পথে বিমানবন্দরে পৌঁছার পর কোনো হজযাত্রীর মৃত্যুর ঘটনা এই প্রথম।

অর্থসূচক/কেএসআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ