বাজার মূলধনের ২৪ শতাংশই বহুজাতিক কোম্পানির
মঙ্গলবার, ২রা জুন, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

বাজার মূলধনের ২৪ শতাংশই বহুজাতিক কোম্পানির

দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বহুজাতিক তালিকাভুক্ত কোম্পানির সংখ্যা মোট ১১টি। এছাড়া ডিএসইর মোট বাজার মূলধনের ২৪ দশমিক ২৮ শতাংশই তাদের দখলে। ডিএসইর জুলাই মাসের বাজার পর্যালোচনা করে এ তথ্য জানা যায়।

তথ্য মতে, বহুজাতিক কোম্পানিগুলোর মোট বাজার মূলধনের পরিমাণ ৩ লাখ ৮৩ হাজার ৪৭৭ কোটি ৭০ লাখ ৩৯ হাজার ৮৫৮ টাকা। আর কোম্পানিগুলোর মোট শেয়ার সংখ্যা ২৯৭ কোটি ১৪ লাখ ২৭ হাজার ৫৫৯টি।

সংশ্লিষ্টরা মনে করেন, পুঁজিবাজারের উন্নয়নে ভালো কোম্পানির বিকল্প নেই। এরমধ্যে বেশি ভূমিকা রাখে বহুজাতিক কোম্পানিগুলো। বহুজাতিক কোম্পানিতে বিনিয়োগের ফলে বিনিয়োগকারীরা বেশি লাভবান হয় এবং কোম্পানিগুলো বাজার মূলধন বৃদ্ধিতে সহয়তা করে। তাই পুঁজিবাজারে বহুজাতিক কোম্পানির সংখ্যা বাড়াতে হবে। তাদেরকে তালিকাভুক্ত করার ক্ষেত্রে সরকারকেও ভূমিকা রাখতে হবে।

এ বিষয়ে ডিএসই ব্রোকারস এসোসিয়েশনের সভাপতি শাকিল রিজভি অর্থসূচককে বলেন, বাংলাদেশে বহুজাতিক কোম্পানির সংখ্যা ৫০টিরও বেশি। সেখানে মাত্র ১১টি কোম্পানি পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত। পুঁজিবাজারে বহুজাতিক কোম্পানির সংখ্যা আরও বাড়াতে হবে। তাহলে বাজার ভালো থাকবে। এতে দেশের পুঁজিবাজারের উন্নতি হবে এবং বিনিয়োগকারীরাও লাভবান হবে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, সবচেয়ে বেশি বাজার মূলধন রয়েছে গ্রামীণফোনের। যা ডিএসইর মোট বাজার মূলধনের ১১ দশমিক ৭০ শতাংশ। কোম্পানিটির মোট বাজার মূলধনের পরিমাণ ৪৪ হাজার ৮৮৩ কোটি ৯৭ লাখ ২৭ হাজার ৩১৩ টাকা। এরপরে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো। কোম্পানিটি ডিএসইর মোট বাজার মূলধনের ৫ দশমিক ৭৮ শতাংশ দখল করে আছে। কোম্পানিটির মোট বাজার মূলধনের পরিমাণ ২২ হাজার ১৪৯ কোটি টাকা। ডিএসইর মোট বাজার মূলধনের ১ দশমিক ৭৬ শতাংশ দখল করে তৃতীয় স্থানে রয়েছে বার্জার পেইন্টস। কোম্পানিটির মোট বাজার মূলধনের পরিমাণ ৬ হাজার ৭৩১ কোটি ৭৪ লাখ ৯২ হাজার ৮২০ টাকা।

অপরদিকে ডিএসইর মোট বাজার মূলধনের বাটা সু কোম্পানি শূন্য দশমিক ৩৪ শতাংশ, গ্লাক্সোস্মিথ ক্লাইন শূন্য দশমিক ৪৯ শতাংশ, হাইডেলবার্গ সিমেন্ট শূন্য দশমিক ২৯ শতাংশ, লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট ১ দশমিক ২১ শতাংশ, লিন্ডে বিডি শূন্য দশমিক ৪৭ শতাংশ, ম্যারিকো ১ দশমিক ৩৯ শতাংশ এবং সিঙ্গার বিডি শূন্য দশমিক ৫৫ শতাংশ দখল করে আছে।

এসব বহুজাতিক কোম্পানিগুলোর মধ্যে ২টি কোম্পানিতে সরকারের বিনিয়োগ রয়েছে। যা মোট ৪ দশমিক ৪১ শতাংশ। কোম্পানি ২টি হচ্ছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো ও রেকিট বেনকিজার। ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকোতে সরকারের বিনিয়োগ রয়েছে কোম্পানির মোট শেয়ারের শূন্য দশমিক ৬৪ শতাংশ এবং রেকিট বেনকিজারে কোম্পানির মোট শেয়ারের ৩ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

অর্থসূচক/কেএসআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ