‘উচ্চপ্রবৃদ্ধি অর্জনে বেসরকারি খাতে বিনিয়োগ বৃদ্ধির বিকল্প নেই’

উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হতে হলে বেসরকারি খাতে বিনিয়োগ বৃদ্ধির কোনো বিকল্প নেই। উন্নয়নশীল লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে হলে ব্যক্তিখাতে বিনিয়োগ প্রবৃদ্ধি হতে হবে ১৪ শতাংশ। কিন্তু বর্তমানে এটি ১০ শতাংশের মতো। যা সন্তোষজনক নয় বলে মন্তব্য করেছেন বালাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিডা) এর নির্বাহী চেয়ারম্যান কাজী মো. আমিনুল ইসলাম।

আজ মঙ্গলবার বালাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিডা) এর কনফারেন্স কক্ষে ‘ক্ষুদ্র ঋণ, উদ্যোক্তা অর্থায়ন এবং বিনিয়োগ’ বিষয়ক এক সভায় এসব কথা বলেন তিনি। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর এসডিজি বিষয়ক মূখ্য সমন্বয়ক মো. আবুল কালাম আজাদ।

বিডা চেয়ারম্যান বলেন, বেসরকারি খাতে দেশি বিনিয়োগে উৎসাহদান, শিল্প স্থাপনে প্রয়োজনীয় সুযোগ সুবিধা ও সহায়তা প্রদান এবং দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে বিনিয়োগ প্রসারের লক্ষ্যে আঞ্চলিক পর্যায়ে অংশীদারিত্বমূলক কার্যক্রম বাস্তবায়নে কার্যকর প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো গড়ে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, নতুন উদ্যোক্তারাই পারে বাংলাদেশকে দুরন্ত গতিতে এগিয়ে নিয়ে যেতে, এজন্য তাদের সব ধরনের সহযোগিতা করতে হবে, সফল ব্যাবসায়ীদের সাথে পরিচয় করিয়ে দিতে হবে, ইনোভেটিভ আইডিয়া, গবেষণা, অভিজ্ঞতা দিয়ে তাদের অনুপ্রাণিত করে যেতে হবে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আবুল কালাম আজাদ বলেন, ক্ষুদ্র এবং মাঝারি প্রতিষ্ঠানসমূহ দেশের অর্থনীতির প্রাণ, এদের উন্নয়নের উপরেই দেশের উন্নয়ন ও প্রবৃদ্ধি নির্ভর করে, তাই বিনিয়োগে আগ্রহী ক্ষুদ্র এবং মাঝারি প্রতিষ্ঠানসমূহকে আর্থিক সহায়তা থেকে শুরু করে সব ধরেনের সহযোগিতা প্রদান করতে হবে। এবং সেই সাথে শহর ও গ্রামের আগ্রহী বেকার যুব পুরুষ ও মহিলাদের বিনিয়োগে উৎসাহ ও প্রশিক্ষণ প্রদান করতে হবে। তবেই আমারা সমন্বিত ভাবে টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট অর্জন করতে পারবো।

সভায় বাংলাদেশকে ২০২১ সালের মধ্যে একটি মধ্যম আয়ের রাষ্ট্রে এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করার লক্ষ্যকে সামনে রেখে নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি, তাদের ঋণ সহায়তা প্রদানসহ, বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি, পরামর্শ প্রদান এবং বিনিয়োগের সম্ভাবনাময় ক্ষেত্র নিয়ে আলোচনা করা হয়। এ সময় বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পকর্পোরেশন (বিসিক), এসএমই ফাউন্ডেশন, কর্ম সংস্থান ব্যাংক, পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক, পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশন, বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশন , বাংলাদেশ ব্যাংক, ব্রাক ব্যাংক এর প্রতিনিধিগণ পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে ক্ষুদ্র ঋণ, উদ্যোক্তা অর্থায়ন এবং বিনিয়োগ বৃদ্ধির লক্ষ্যে স্ব-স্ব প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

অর্থসূচক/এমআরএম/জেডএ/এমএস