সারাদেশে সংঘর্ষ ও ভাংচুরের মধ্য দিয়ে জামায়াত শিবিরের সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে

jamat-shibir

jamat-shibirএকাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে অভিযুক্ত মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত  জামায়াত নেতা কাদের মোল্লার ফাঁসি কার্যকরের প্রতিবাদে সারাদেশে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে। এই হরতালে সকাল থেকে দেশের বিভিন্নস্থানে নিহত হয়েছে কয়েকজন। আর আহত অনেকে। এদিকে হরতাল ঘিরে রাজধানীতে নেওয়া হয়েছে বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা। গুরুত্বপূর্ণ সব এলাকায় পুলিশ ও র‌্যাব মোতায়েন করা হয়েছে।

আজ সকালে রাজশাহীতে ছাত্রশিবির কর্মীদের সাথে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। মহানগরীর বিনোদপুর ও শালবাগান এলাকায় সকাল সাড়ে ৭টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

রোববার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে গাছের গুঁড়ি ফেলে ও টায়ার জ্বালিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন রাজশাহী-ঢাকা মহাসড়ক অবরোধ করে ছাত্রশিবির কর্মীরা। এ সময় পুলিশ ছাত্রশিবির কর্মীদের সরিয়ে দিতে চাইলে সংঘর্ষের সূত্রপাত ঘটে। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলে সংঘর্ষ। ছাত্রশিবির কর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল ছোড়ে এবং অর্ধশতাধিক ককটেল ও হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটায়।

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার কাফির বাজারে পুলিশের সঙ্গে জামায়াত-শিবিরের সংঘর্ষে শিবির সভাপতিসহ দুইজন নিহত হয়েছে।

রোববার জামায়াতের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালের শুরুতেই সকাল সাড়ে সাতটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, পাটগ্রাম উপজেলা ছাত্র শিবিরের সভাপতি মনিরুল ইসলাম (২৫) ও শিবিরকর্মী আব্দুর রহিম (২২)।

পাটগ্রাম থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক আশরাফুল আলম জানান, হরতালের নামে একটি ট্রাকসহ বেশ কয়েকটি যানবাহনে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে জামায়াত-শিবির কর্মীরা।

 

রবিবার সকালে জামায়াত-শিবিরের হরতাল চলাকালে নারায়ণগঞ্জ শহরের উকিলপাড়া এলাকায় পুলিশের সঙ্গে শিবির কর্মীদের সংঘর্ষে ২জন গুলিবিদ্ধসহ ৬জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ গুলিবিদ্ধ ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে।

জানা যায়, সকালে শহরের উকিলপাড়া এলাকায় হরতালের সমর্থনে শিবিরকর্মীরা একটি ঝটিকা মিছিল বের করে। এ সময় পুলিশ বাধা দিলে শিবির কর্মীদের সাথে সংঘর্ষ বাধে। শিবিরকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে রেলসড়কে থাকা পাথর ছোড়ে মারতে থাকে। পরিস্থিতি নিয়স্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কয়েক রাউন্ড শটগানের গুলি ছুঁড়ে। এতে ২ জন গুলিবিদ্ধসহ ৬ জন আহত হয়। গুলিবিদ্ধ ২ জনকে গ্রেপ্তার করে চিকিৎসার জন্য নারায়ণগঞ্জ হাসপাতালে পাঠায় পুলিশ।

গাজীপুরে জামায়াত নেতা আব্দুল কাদের মোল্লার ফাঁসি কার্যকরের প্রতিবাদে জামায়াত-শিবিরের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালের শুরুতে রাস্তায় আগুন দিয়ে মিছিলের চেষ্টা করে শিবিরের নেতাকর্মীরা। নাশকতার অভিযোগে শনিবার রাত থেকে রবিবার সকাল পর্যন্ত পুরো জেলা থেকে ১৩ জনকে আটক করে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আজ সকাল ৭টার দিকে গাজীপুর শহরের রাজবাড়ি রোডের বরুদা ঢাল থেকে শিবিরের নেতাকর্মীরা একটি মিছিল বের করে। তারা স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা ও বাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমানের বাড়ির পাশে রাস্তায় আগুন দেয়। মিছিলটি শহরের দিকে  আসতে চাইলে পুলিশ ধাওয়া করে। পুলিশি ধাওয়ায়  মিছিলটি ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়।