সুস্থ হৃদয়ের জন্য কার্যকর টিপস!
বৃহস্পতিবার, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

সুস্থ হৃদয়ের জন্য কার্যকর টিপস!

যত দিন যাচ্ছে তত চারিদিকে নানা রকমের অসুস্থতা মানুষকে ঘিরে ধরছে। ক্যান্সার থেকে শুরু করে টিউমার, বাদ নেই কোনও রোগের। তাই শরীরের সবদিক লক্ষ্য রাখা দরকার। এবার আমরা জানব কিভাবে হার্টের যত্ন নিতে হয়। বিভিন্ন কারণে আমরা অজান্তেই ক্ষতি করে ফেলি নিজের হার্টের। অসুখ ধরা পড়লে সঙ্গে সঙ্গে ছুটতে হয় ডাক্তারের কাছে৷ ব্যস। এটা বন্ধ ওটা বন্ধ৷ নিজের প্রিয় খাবারে লাল চিহ্ন পড়ে যায় এক আধটা অনিয়মের জন্য। এদিন আসার আগেই ফোলো করুণ কয়েকটি জরুরি টিপস৷ যা আপনার হৃদয়কেও সুস্থ রাখবে, সঙ্গে আপনার ফুড হ্যাবিটও বদলাবার প্রয়োজন পড়বে না৷

এই নিয়মগুলো অতি সাধারণ, যা অনুসরণ করতে লাগবে ধৈর্য্য।

 

১. সবার আগে বন্ধ করুন ধূমপান। কারণ এই একটা কারণের জন্য কেবল হার্ট নয়, ধরা দেয় ক্যান্সারেরও৷ শরীরের জন্য ধূমপান কতটা ক্ষতিকারক তা আলাদা করে কাউকেই বলতে হবে না৷ যারা ধূমপান করেন, বা যারা করেন না, প্রত্যেকেই স্মোকিংয়ের ব্যাপারের যথেষ্ট সচেতন৷ হার্টের অসুখ বাড়ার কারণই হল ধূমপান৷ নিজেকে সুস্থ রাখতে, নিজের পরিবারকে সুস্থ রাখতে সবার আগে ছাড়তে হবে ধূমপান৷ এই টিপটি অনুসরণ করলেও আপনার হৃদয় অনেকটাই সুস্থ থাকবে৷

২. নিয়মিত যৌন সম্পর্কে আবদ্ধ থাকলে কমতে পারে হার্টের সমস্যা৷ নিজেকে যৌন মিলনে নিযুক্ত রাখলে আপনার মন ভাল থাকবে৷ যার প্রভাব সরাসরি পড়বে আপনার হার্টের উপর৷ এই ধরণের আনন্দদায়ক কার্যকলাপে সক্রিয় থাকলে শরীরের হ্যাপি হরমোনস গুলো আপনার স্ট্রেস দূর করবে৷ কারণ স্ট্রেস বাড়লে, হৃদয়ের বিভিন্ন অসুখের সম্ভাবনাও বাড়বে৷ গবেষণা করে দেখা গিয়েছে, যৌন কার্যকলাপ হার্টের অসুখকে দূরে রাখতে অনেকটাই সাহায্য করে৷

 

৩. এই নিয়মটি কেউই বোধহয় নিয়ম হিসেবে দেখবেন না৷ সবার বেশ পছন্দের নিয়ম হতে পারে এটি৷ রোজ এক গ্লাস করে রেড ওয়াইন পান করুন৷ তবে এক গ্লাসের বেশি নয়৷ এখানেই নিজেকে আবদ্ধ করে নিতে হবে৷ এক গ্লাসের বেশি খেলেই সেটা আপনার হৃদয়ের বিভিন্ন সমস্যার কোনও কাজেই আসবে না৷ প্রতিদিন এক গ্লাস করে রেড ওয়াইন পান করলে অতিরিক্ত কোলেস্ট্রোল লেভেল কমিয়ে দেয়৷ হার্টে রক্তের জমাট বাঁধা কমাতে সাহায্য করে৷ তবে নিয়ম করে খেলেই একমাত্র ফল পাওয়া যাবে৷

 

৪. আমরা অনেকেই পাতে লবণ খাই৷ রান্নায় বেশি লবন দেই। সেটা খুব তাড়াতাড়ি কমিয়ে ফেলুন৷ দিনে এক চা চামচ লবণ আপনার হৃদয়কে সুস্থ রাখার জন্য যথেষ্ট৷ গবেষণায় দেখা গিয়েছে, যারা অতিরিক্ত লবণ খান তাদের হার্ট ডিজিজ বেশি ধরা পড়ে৷

 

৫. ডার্ক চকোলেট হার্টের জন্য বেশ উপকারী। ডার্ক চকোলেটের মধ্যে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং ফ্ল্যাবোনয়েডস থাকার কারণে হৃদয়ক্ষতে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। তবে একটা প্যাকেট গোটা খেয়ে নিলে কিন্তু হীতে বিপরীত হওয়ার সুযোগ থাকতে পারে৷ রাতে খাওয়ার পর এক টুকরো ডার্ক চকোলেট খান৷ তবেই মিলবে ফল৷

 

৬. লিফ্ট ছেড়ে সিঁড়ি বেশি ব্যবহার করুন৷ অনেকেই হাঁটা এড়িয়ে যাওয়ার জন্য লিফ্ট ও এসকেটর ব্যবহার করেন৷ কিন্তু এই কাজে সবচেয়ে বেশি আপনি নিজের শরীরের ক্ষতি করছেন৷ সিঁড়ি ব্যবহার করলে আপনার হৃদয় তো সুস্থ থাকবে সঙ্গে ওজনও কমবে৷ যতই জিমে গিয়ে ওয়ার্ক করুন না কেন৷ লিফ্ট ছেড়ে সিঁড়ি দিয়ে হাঁটাচলা না করলে কোনও সাহায্যই হবে না৷

 

৭. রোজ নিয়মিত দাঁত পরিষ্কার করুন৷ গবেষণায় দেখা গিয়েছে, মুখের ভেতর পরিষ্কার না রাখলেই বাড়তে পারে হার্টের রোগ। শরীরকে সুম্থ রাখতে দু’বার ব্রাশ করুণ।

এই বিভাগের আরো সংবাদ