এলএনজি আমদানিতে কাতারের সঙ্গে ১৫ বছরের চুক্তি
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

এলএনজি আমদানিতে কাতারের সঙ্গে ১৫ বছরের চুক্তি

তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) আমদানিতে কাতারের সঙ্গে ১৫ বছরের চূড়ান্ত চুক্তি করেছে বাংলাদেশ সরকার।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক গ্লোবাল প্ল্যাটস জানিয়েছে, গত বৃহস্পতিবার ঢাকায় এ চুক্তি হয়েছে। এসময় পেট্রোবাংলা  ও কাতারের র‍্যাশগ্যাস কোম্পানির প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

পেট্রোবাংলার এক উর্ধ্বতন কর্মকর্তার বরাতে সংবাদ মাধ্যমটি জানিয়েছে, চুক্তি অনুযায়ী কাতারের রাষ্ট্রীয় এই কোম্পানি থেকে বছরে ২.৫ মিলিয়ন মেট্রিকটন গ্যাস আমদানি করবে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশে নির্মিত হতে যাওয়া একটি এলএনজি টার্মিনালের নকশা

সাম্প্রতিক সময়ে কাতারকে ঘিরে মধ্যপ্রাচ্য সংকট যখন তীব্র হচ্ছে তার মধ্যে বাংলাদেশের সঙ্গে এই চুক্তি হলো।

সংবাদ মাধ্যমটি জানায়, গ্যাসের দরদাম নিয়ে গত সপ্তাহে কয়েকবার বৈঠকে বসার চেষ্টা করে কাতারের প্রতিনিধিরা। কিন্তু দুই পক্ষ চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসতে পারিনি। অবশেষে গত বুধবার ঢাকায় আসে কাতারের প্রতিনিধিরা। বৃহস্পতিবার দুই পক্ষ চূড়ান্ত চুক্তিতে পৌঁছে।

পেট্রোবাংলার ওই কর্মকর্তা জানান, চুক্তির বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা হয়েছে। দাম কত হবে; কতটুকু নেওয়া হবে, মেয়াদ সবই নির্ধারণ করা হয়েছে।

এর আগে গত জুনে পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান আবুল মনসুর মো. ফাইজুল্লাহ গ্লোবাল প্ল্যাটসকে বলেছিলেন, কাতার সফরকালে কাতারের রাসগ্যাসের সাথে সরকারি পর্যায়ে প্রাথমিক আলোচনা চূড়ান্ত করেছেন। তারা মূল্য ছাড়া সব ইস্যুর সমাধান করেছেন।

সরকার মূলত ২০১০ সাল থেকে এলএনজি আমদানির প্রক্রিয়া শুরু করে। তখন থেকে এলএনজি আমদানির জন্য কাতারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়।

এ নিয়ে এর আগে কাতারের সঙ্গে একটি এমওইউ সই করে বাংলাদেশ। টার্মিনাল নির্মাণে সময়ক্ষেপণের কারণে এতদিন প্রক্রিয়াটি ঝুলে ছিল।

শাহীন

এই বিভাগের আরো সংবাদ