৩০০ কোটি টাকা মূলধনে শুরু হচ্ছে ক্লিয়ারিং কর্পোরেশন
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

৩০০ কোটি টাকা মূলধনে শুরু হচ্ছে ক্লিয়ারিং কর্পোরেশন

৩০০ কোটি টাকা পরিশোধিত মূলধন নিয়ে শুরু হচ্ছে ক্লিয়ারিং কোম্পানির যাত্রা। খসড়া বিধিমালা অনুযায়ী এই কোম্পানির পরিশোধিত মূলধন হওয়ার কথা ছিল ৫০০ কোটি টাকা।

তবে এই ৫০০ কোটি টাকার বিপরীতে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরামর্শ ছিল মাত্র ১০০ কোটি টাকা।

dseইতোমধ্যে ক্লিয়ারিং অ্যান্ড সেটেলমেন্ট কোম্পানি গঠনও পরিচালনার জন্য চূড়ান্ত বিধিমালা গেজেট আকারে প্রকাশ করা হয়েছে। যেখানে উভয় স্টক এক্সচেঞ্জের মালিকানা কমানো হয়েছে। মালিকানা ৭০ শতাংশ থেকে কমিয়ে করা হয়েছে ৬৫ শতাংশ।

যদিও ডিএসই এই মালিকানা ৭০ থেকে বাড়িয়ে ৮০ শতাংশ করার প্রস্তাব করেছিল।

বিধিমালা অনুযায়ী, ব্যাংক এবং সেন্ট্রাল ডিপোজিটরি বাংলাদেশ (সিডিবিএল) সর্বোচ্চ ১৫ শতাংশ শেয়ার ধারণ করতে পারবে। আর কৌশলগত বিনিয়োগকারীরা ধারণ করতে পারবে ১০ শতাংশ মালিকানা।

বিধিমালায় কমিশন নন ব্যাংকিং আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বিমা কোম্পানির জন্য ১০ শতাংশ করে শেয়ার ধারণের ক্ষমতা খসড়া প্রস্তাবে রাখলেও চূড়ান্ত বিধিমালা থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে।

ডিএসইর পরামর্শের ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কমিশন। এখানে ডিএসই বলছে, এই ধরনের প্রতিষ্ঠানগুলোর শেয়ারের দরপতনের ফলে নিরাপেক্ষ কার্যক্রম নিয়ে প্রশ্ন উঠবে। তাতে পুঁজিবাজারে মূলধন উত্তোলনে স্বার্থের দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হবে।

উল্লেখ, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) ৬০৪তম সভায় এই বিধিমালার চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়।

অর্থসূচক/মাহমুদ

এই বিভাগের আরো সংবাদ