ফ্যাশন ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে হিজাবি মডেল হালিমা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » টুকিটাকি

ফ্যাশন ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে হিজাবি মডেল হালিমা

halimaaden-bbc

ফ্যাশন ম্যাগাজিন অ্যালিউর এর প্রচ্ছদে হালিমা এডেন

হিজাব পরেই তিনি উঠে এসেছেন ফ্যাশন ম্যাগাজিন অ্যালিউর এর প্রচ্ছদে। কিছুটা তাক লাগিয়ে দিয়েছেন ফ্যাশন দুনিয়াকে। অ্যালিউরসহ যে কোনো প্রথম সারির ফ্যাশন ও বিউটি ম্যাগাজিনে হিজাবধারীকে প্রচ্ছদ-কন্যা (Cover Gilr) করার ঘটনা যে এটিই প্রথম। বলছি, সোমালিয়ার বংশোদ্ভূত ১৯ বছরের হালিমা এডেনের কথা; অ্যালিউর এর সর্বশেষ সংখ্যায় যাকে নিয়ে প্রচ্ছদ করা হয়েছে। খবর বিবিসি ও ইনডিপেনডেন্টের।

অ্যালিউরে হালিমা এডেনকে প্রচ্ছদ করার বিষয়টি পশ্চিমা গণমাধ্যমগুলো গুরুত্বে সঙ্গে তুলে ধরেছে।

Halima-Aden-Pink

অ্যালিউরকে দেওয়া সাক্ষাতকারে হালিমা বলেন, ৭ বছর বয়সে তিনি হিজাব পরতে শুরু করেন। তার মাকে হিজাব পরতে দেখে তিনি নিজেও তা পরতে আগ্রহী হন।

তিনি বলেন, সব মুসলিম নারী হিজাব পরে না। এটি যার যার পছন্দ, রুচি আর ব্যক্তি স্বাধীনতার বিষয়। কিন্তু হিজাব পরলেই ফ্যাশন, সৌন্দর্য-সব কিছু থেকে দূরে থাকতে হবে বিষয়টি এমন নয়। আমি এই পুরনো ধারণা ভেঙ্গে দেওয়ার চেষ্টা করছি।

অন্যদিকে বিবিসিকে অ্যালিউর সম্পাদক মাইকেল লি বলেন, হালিমাকে নিয়ে প্রচ্ছদ করতে পেরে তারা গর্বিত।

তিনি বলেন, তারা চেয়েছিলেন অ্যালিউরের জুলাই সংখ্যায় ব্যতিক্রমী কাউকে নিয়ে প্রচ্ছদ করতে, আমেরিকান সৌন্দর্যের বৈচিত্রকে তুলে ধরতে।

গৃহযুদ্ধে বিধ্বস্ত সোমালিয়ায় জন্ম হালিমা এডেনের। প্রাণ বাঁচাতে তার পরিবার কেনিয়ায় আশ্রয় নেয়। কেনিয়ার একটি আশ্রয় শিবিরে কাটে তার শৈশবের একটা অংশ। আট বছর বয়সে তিনি পরিবারের সঙ্গে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে অভিবাসী হন।

যুক্তরাষ্ট্রে মিনেসোটায় মিস মিনেসোটা প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে হালিমা প্রথমে সবার নজরে আসেন। সেটি গত বছরের ঘটনা। Halima-ramp

 

 

মিস মিনেসোটা প্রতিযোগিতার পর হালিমার প্রতি গণমাধ্যমের আগ্রহ ব্যাপকভাবে বেড়ে যায়। অ্যালিউর ম্যাগাজিনে প্রচ্ছদ হওয়ার আগে তিনি বিখ্যাত ফ্যাশন ম্যাগাজিন ভোগ এর মধ্যপ্রাচ্য সংস্করনে (Vogue Arabia) ও ফ্রান্সের ফ্যাশন বুক ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে জায়গা করে নেন।

এই বিভাগের আরো সংবাদ