ব্রহ্মপুত্র দিয়ে ভেসে আসছে ভারতীয় গরু!
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

ব্রহ্মপুত্র দিয়ে ভেসে আসছে ভারতীয় গরু!

ভারত থেকে বাংলাদেশে গরু পাচার ঠেকাতে কঠোর অবস্থান নিয়েছে ভারত সরকার। গত প্রায় তিন বছর থেকে বাংলাদেশের বাজারেও ভারতের গরুর উপস্থিতি কমেছে। তবে পরিমাণে কমলেও সীমান্ত দিয়ে ভারতীয় গরু আসা কিন্তু বন্ধ হয়নি।

এবার দেখা গেল ভারতের আসাম রাজ্য থেকে ব্রহ্মপুত্র নদের জলে ভেসে আসছে পাচার করা গরু।

পাচারকারীরা নানা সময়ে নানা কৌশল অবলম্বন করে। এর আগে সুড়ঙ্গ দিয়ে গরু পাচার, বাঁশে বেঁধে তারকাঁটার বেড়া টপকে গরু পাচারসহ ও আরও কয়েকটি উপায়ে ভারত থেকে বাংলাদেশে গরু পাচারে ছবি ও ভিডিও সংবাদমাধ্যমে প্রচার হয়। গরু পাচারের সেই ভিডিও ও ছবি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনাও হয় বিস্তর।

Cow-Brahmaputra

ব্রক্ষ্মপুত্র দিয়ে এমন নির্মমভাবে ভাসিয়ে আনা হয় গরু

গত বছর ইউটিউবে শেয়ার করা এক ভিডিওতে দেখা যায়, শীতের সকালে কিছু গরু পাচারকারী ভারত থেকে গরু পাচারের নির্মম এক কৌশলের আশ্রয় নিয়েছে। ভারী কোনো জিনিস যেভাবে ক্রেন দিয়ে তোলা হয়, সেই কৌশলেই কাঁটা তারের ওপার থেকে একটা একটা করে গরু নেওয়া হচ্ছে বাংলাদেশে।

সেবার এই ভিডিওটি নিয়ে বিস্তর আলোচনা হয়। ভারত তার সীমান্তরক্ষী বাহিনীকে আরও সতর্ক হওয়ার নির্দেশ দেয়। তখন দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং বিএসএফ সদস্যদের উদ্দেশে বলেছিলেন, বাংলাদেশে গরু পাচার এমন কঠোরভাবে বন্ধ করতে হবে যাতে বাংলাদেশিরা গোমাংস খাওয়া ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়।

তবে রাজানাথের সেই নির্দেশকে এক প্রকার বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়েছে গরু পাচারকারীরা। এবার তারা গরু পাচারের নতুন কৌশল অবলম্বন শুরু করেছে।

সম্প্রতি ভারতে ইন্ডিয়া টিভির এক বিশেষ প্রতিবেদনে দেখা গেছে, পাচারকারীরা এখন সীমান্তের ওপার থেকে নদীতে গরু ভাসিয়ে দিয়ে সেগুলো বাংলাদেশে পাচার করছে।

দেখা গেছে আসামের ধুপরি জেলার পাচারকারীরা গরুগুলোর পা কলা গাছ বা গাছের গুড়ির সঙ্গে বেধে ব্রহ্মপুত্র নদে ভাসিয়ে দিচ্ছে। সেগুলো বাংলাদেশ সীমান্তে ভেসে আসলে বাংলাদেশে থাকা গরু পাচারকারীরা পাড়ে তুলে নিচ্ছে।

স্থানীয়দের ভাষ্য, এই পথে প্রতিদিন গড়ে ৩০০ থেকে ৪০০টি গরুর পাচার হয় বাংলাদেশে। সীমান্তের এপাশে গরুগুলো চিনে নেওয়ার জন্য তাদের গায়ে আলাদা আলাদা কোড নম্বর দেওয়া থাকে।

এই কৌশলে পাচারের সময় অনেক গরু মারা যায় বলেও জানান স্থানীয়রা।

উল্লেখ, ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের প্রায়  চার হাজার কিলোমিটারের সীমান্ত রয়েছে। এই বিশাল সীমান্ত এলাকা দিয়ে দুই দেশের চোরাচালানিরা সহজেই গরু ও জাল নোট পাচার করে থাকে।

টি

এই বিভাগের আরো সংবাদ