কাঠবেড়ালি, ও কাঠবেড়ালি!
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

কাঠবেড়ালি, ও কাঠবেড়ালি!

‘কাঠবেড়ালি! কাঠবেড়ালি! পেয়ারা তুমি খাও?’ কবি কাজী  নজরুল ইসলামের কবিতাটিতে কাঠবেড়ালির পেয়ারাখেকো মনোভাব প্রকাশ পেলেও এই স্তন্যপায়ী প্রাণীটি সব ধরনের ফলই খেয়ে থাকে। গাছের বাকল, বীজ ইত্যাদিও খাদ্য তালিকায় রয়েছে। রোডেনশিয়া বর্গের স্কিউরিডে গোত্রের প্রাণিটি দেখতে বেশ চমৎকার। এন্টার্কটিকা এবং অস্ট্রেলিয়া ছাড়া সারাবিশ্বেই বিভিন্ন প্রজাতির কাঠবিড়ালি ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে। গ্রীষ্মমন্ডলীয় অঞ্চলের কিছু কাঠবিড়ালীর শরীরে সাদা-কালো ডোরা থাকে।

এরা খুবই ছটফটে ও দুরন্ত প্রকৃতির।

বাংলাদেশে ৮ প্রজাতির কাঠবিড়ালি দেখা যায় বলে জানিয়েছেন প্রাণিবিদরা।

ঢাকার রমনা পার্কে কাঠবেড়ালির বিচরণ দেখতে পাওয়া যায়।

কাঠবেড়ালিদের প্রিয় খাবারের তালিকায় আছে বিভিন্ন রকমের কাঠবাদাম।

একটি গাছে খাদ্যের সন্ধানে কাঠবেড়ালি।

এরা এক গাছ আরেক গাছে লাফাতে খুবই পটু।

এরকম দাগকাটা কাঠবেড়ালিই আমাদের দেশে বেশি দেখা যায়।

ধারালো নখ ও পায়ের নিচে নরম প্যাডের কারণে বেশ দ্রুত ভারসাম্য রক্ষা করতে পারে।

এরা খুবই পরিশ্রমী হয়ে থাকে।

অর্থসূচক/সাদিয়া খান/কে এম

এই বিভাগের আরো সংবাদ