নিহত সৌদি প্রবাসীদের বাড়িতে শোকের মাতম
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

নিহত সৌদি প্রবাসীদের বাড়িতে শোকের মাতম

সৌদি আরবের দাম্মামের আলকাতিফ এলাকায় পুলিশের গুলিতে ভৈরবের শাহপরাণ (২৮) ও শামীম (৪০) নামের দুই প্রবাসী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন মাহাবুব নামের অপর একজন। নিহত শাহপরাণ ও শামীমের বাড়ি ভৈরব পৌরশহরের চন্ডিবের এবং আহত মাহবুবের বাড়ি উপজেলার শিবপুর ইউনিয়নের ছনছাড়া গ্রামে। তাদের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম।

নিহতদের পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, গত ৬ জুন সৌদি আরব সময় রাত সাড়ে ৯টার দিকে কাজ শেষ করে আকামা জটিলতায় আলকাতিফ এলাকায় কফিলের উদ্দেশ্যে রওনা দেন ওই তিন প্রবাসী। এ সময় ওই এলাকায় শিয়া ও সুন্নি সম্প্রদায়ের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের কারণে ১৪৪ ধারা জারি ছিল। তারা ১৪৪ ধারা সম্পর্কে অবগত না থাকায় পুলিশ তাদের লক্ষ্য করে গুলি করে। গুলিবিদ্ধ শামীম, শাহপরাণ ও মাহবুবকে সেখান থেকে উদ্ধার করে দাম্মামের ‘আবুমি’ হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক শামীম ও শাহপরাণকে মৃত ঘোষণা করেন। গুরুতর আহত মাহাবুব বর্তমানে ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। শামীম মধ্যচন্ডিবের এলাকার মৃত সূরুজ মিয়ার ছেলে। অপরদিকে শাহপরাণ একই এলাকার বুদাই বেপারির বাড়ির নূরু মিয়ার ছেলে।

নিহত সৌদি আরব প্রবাসী শামীম ও শাহপরাণ।

পারিবারিক সূত্রে আরো জানাযায়, নিহতরা পরস্পর আত্মীয়। শামীম ওইখানে একা থাকলেও, শাহপরাণরা চারভাই থাকেন দাম্মামে। অপর তিন ভাই হলেন জাফরান, মিজান ও ইমরুল কায়েস।

নিহতের ভাই জাফরান জানান, ঘটনার পর থেকে সৌদি আরবের বাংলাদেশ দূতাবাসে তারা ছুটাছুটি করছেন। কিন্তু তেমন কোনো সাড়া পাচ্ছেন না। তিনি তার ভাইদের লাশ দেশে পাঠাতে সরকারের সহায়তা কামনা করেন।

অপরদিকে শামীম ভৈরবের ফেরিঘাট বাজারে ব্রয়লার মুগির বেঁচা-কেনার ব্যবসা করতেন। স্ত্রী আলেয়া খাতুন, সদ্য এসএসসি পাশ করা মেয়ে তমা, মাদ্রাসায় পড়ুয়া মেয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস এবং স্থানীয় একটি কিন্ডারগার্টে কেজি ওয়ানে পড়ুয়া একমাত্র ছেলে ছিদ্দিকুর রহমানকে নিয়ে ছিলো তার সংসার। অভাবের সংসারে সচ্ছলতা মাত্র চার মাস আগে তিনি দাম্মামে পাড়ি জমান। শামীমের আকামার জন্যই তার কফিলের বাড়িতে যাচ্ছিলেন শামীম, শাহপরাণ ও মাহবুব।

অর্থসূচক/মোস্তাফিজ/কে এম

এই বিভাগের আরো সংবাদ