প্রতিদিনের ইফতারে একটি করে খেজুর
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

প্রতিদিনের ইফতারে একটি করে খেজুর

সারাদিন রোজা পালনের পর দিন শেষে প্রত্যেক মুসলমানের জন্য আল্লাহর বিশেষ নিয়ামত ইফতার। খেজুর দিয়ে ইফতার শুরু করেন বেশিরভাগ মানুষ; অনেকেই একে সুন্নাত বলে উল্লেখ করেন। তাই রমজানে খেজুরের কদরও বেড়ে যায় অনেক বেশি।

অতি পরিচিত ও মিষ্টি ছোট ফল খেজুরের রয়েছে অনেক গুণ। সারা দিনের ক্লান্তি দূর করতে ইফতারিতে প্রত্যেকের জন্য একটি করে খেজুরই যথেষ্ট।

বলা হয়ে থাকে, বছরে যতগুলো দিন আছে, খেজুরে গুণ তার চেয়েও বেশি। তাই রোজা পালনের পর এই ফল খাওয়া দরকার। খেজুর শুধু ক্লান্তি দূর করে না; শরীরের প্রয়োজনীয় ভিটামিনেরও জোগান দেয়।

হৃদরোগীদের জন্যও খেজুর বেশ উপকারী

খেজুরে রয়েছে এমিনো এসিড, প্রচুর শক্তি, শর্করা ভিটামিন ও মিনারেল। রোজায় দীর্ঘ সময় খালি পেটে থাকার কারণে দেহে গ্লুকোজের ঘাটতি দেখা দেয়। শরীরের এই প্রয়োজনীয় গ্লুকোজের ঘাটতি পূরণ করতে সাহায্য করে খেজুর। তাই প্রতিদিন ইফতারে খেজুর খাওয়া উচিত।

এছাড়া খেজুরের রয়েছে আরও অনেক উপকারী গুণ। সেগুলো হলো-

১. খাদ্যশক্তি থাকায় দুর্বলতা দূর করে

২. খেজুর স্নায়ুবিক শক্তি বৃদ্ধি করে

৩. হৃদরোগীদের জন্যও খেজুর বেশ উপকারী এই ফল

৪. খেজুর শরীরে রক্ত উৎপাদন করে

৫. হজমশক্তি বর্ধক, যকৃৎ ও পাকস্থলীর শক্তিবর্ধক

৬. রুচি বাড়ায়

৭. রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

৮. দৃষ্টিশক্তি বাড়ায়

৯. ফুসফুসের সুরক্ষার পাশাপাশি মুখগহ্বরের ক্যান্সার রোধ করে

১০. খেজুরে আছে ডায়েটরই ফাইবার; যা কোলেস্টেরল থেকে মুক্তি দেয়।

যেকোনো ফলের চেয়ে খেজুরের পুষ্টিগুণ অনেক বেশি। তাই প্রতিদিনের ইফতার তালিকায় প্রত্যেক সদস্যের জন্য একটি করে খেজুর রাখুন। এছাড়া সারা বছরই খেজুর খেতে পারেন।

অর্থসূচক/তাবাচ্ছুম/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ