‘ভ্যাট আইনের ক্ষুদ্র-মাঝারি ব্যবসায়ীরা বেশি লাভবান হবেন’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

‘ভ্যাট আইনের ক্ষুদ্র-মাঝারি ব্যবসায়ীরা বেশি লাভবান হবেন’

নতুন ভ্যাট আইন নিয়ে স্বচ্ছ ধারণা না থাকায় অহেতুক বির্তক সৃষ্টি হচ্ছে। বরং নতুন এই আইনের ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসায়ীরা বেশি লাভবান হবে বলে মনে করছেন এনবিআরএর অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো. আব্দুর রউফ।

আজ মঙ্গলবার বিকেলে কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট ঢাকা পূর্ব আয়োজিত কমিশনারেটের সোনাইল সম্মেলন কক্ষে ‘মূল্য সংযোজন কর ও সম্পূরক শুল্ক আইন, ২০১২ এর প্রশিক্ষণ ও অনলাইনভিত্তিক ভ্যাট ব্যবস্থা সচেতনতা বিষয়ক এক কর্মশালায় এমন মন্তব্য করেন  তিনি।

তিনি বলেন, ব্যবসায়ীরা এখন এর বিরোধীতা করছেন কিন্তু আইন চালুর ৬ মাস থেকে ১ বছরের মধ্যে তারা বলবেন এ আইন তাদের পক্ষে।

আব্দুর রউফ বলেন, সততার সাথে ব্যবসা করে দেশকে এগিয়ে নিতে হলে সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে ভ্যাট দিতে হবে। নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন ও সঠিকভাবে ভ্যাট আদায় করতে পারলে উন্নয়নে আমরা মালয়েশিয়াকেও ছাড়িয়ে যেতে পারবো।

তিনি বলেন, ভ্যাট আমাদের অর্থনৈতিক উন্নয়নের অক্সিজেন। আমার সন্তানকে নিরাপদে রাখতে, তার স্বাস্থ্যা, শিক্ষা,চিকিৎসা, বাসস্থানের ব্যবস্থা করতে আমাদের ভ্যাট দিতে হবে। সরকারের নিজের কোনো টাকা নাই, জনগণের টাকাই সরকারউন্নয়নের জন্য কাজ করে। আমি ভ্যাট না দিলে এই উন্নয়ন সম্ভব হবে না।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ঢাকা মেট্টোপলিটন পুলিশের ডেপুটি কমিশনার (ট্রাফিক), ঢাকা পূর্ব মোহাম্মদ মইনুল হাসান বলেন, দেশকে ভালোবাসতে হলে আমাদের সবাইকে ভ্যাট দিতে হবে। আর ভ্যাট দেশের অর্থনীতিতে বিরাট ভূমিকা রেখে চলেছে।

তিনি বলেন, দেশের জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাসবাদ দমনেও ভ্যাট প্রয়োজন। দেশকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত করতে হলে ভ্যাটের মধ্যে সকলের অংশগ্রহণ এখন সময়ের দাবি। নতুন ভ্যাট আইন অত্যন্ত যুগপযোগী। এ আইনে ব্যবসায়ীদের সময় নষ্ট হবে না।

সভাপতির বক্তব্যে ড. একেএম নুরুজ্জামান বলেন, ভ্যাট দিলে এই সুবিধা সবাই পাবে। একজন ব্যক্তি ভ্যাট দিবে দেশ গঠনের জন্য, দেশের উন্নয়নের জন্য। সরকার ব্যবসায়ী, জনগণ ও ভোক্তাদের কথা মাথায় রেখেই এ আইন করেছেন।

তিনি বলেন, এ আইনে ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসায়ীরা কোনো ভাবেই ক্ষতিগ্রস্ত হবে না। যারা প্যাকেজ ভ্যাট দিয়েছেন তারা এ আইনে আরো বেশি সুবিধা পাবেন। ব্যবসায়ীরা ভ্যাট, ট্যাক্স দিতে চায়। ভ্যাট হার কোন বিষয় নয়। আমরা সকলকে নিয়ে এ ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন করতে চাই।

কর্মশালায় স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন ঢাকা পূর্ব অতিরিক্ত কমিশনার তাসমিনা হোসেন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, যুগ্ম কমিশনার নাহিদ নওশাদ মুকুল।

অর্থসূচক/রহমত

এই বিভাগের আরো সংবাদ