বেলআউটের ৮৩০ কোটি ডলার ছাড় পাচ্ছে না গ্রিস
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

বেলআউটের ৮৩০ কোটি ডলার ছাড় পাচ্ছে না গ্রিস

মোটা অংকের বেলআউট ফান্ডের পরবর্তী কিস্তির ছাড় পেতে ব্যর্থ হয়েছে অর্থনৈতিকভাবে চরম সংকটে পড়া গ্রিস। সোমবার ইউরোজোনের মন্ত্রীরা বৈঠকে এ অর্থ ছাড়ের ব্যাপারে একমতে পৌঁছাতে পারেনি।

ইউরোগ্রুপের প্রধান জিয়েরোন ডিজসেলব্লম বলেন, গ্রিস এবং এর বিদেশি ঋণদাতা সংস্থা ও দেশগুলোর মধ্যে একটি ‘ফারাক’ তৈরি হয়েছে। যে কারণে অর্থ ছাড়ের ব্যাপারে সন্দেহ থেকে যাচ্ছে। তবে আমরা চুক্তির একেবারে কাছাকাছি চলে এসেছিলাম।

ছবিটি প্রতীকী

ইউরোজোনভুক্ত দেশগুলো অর্থনৈতিক ধস থেকে উঠে দাঁড়াতে গ্রিসকে নতুন বেইল আউট চুক্তির আওতায় ৮৬ বিলিয়ন ইউরো ঋণ সহায়তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। এই অর্থের পরবর্তী কিস্তি (৭.৫ বিলিয়ন ইউরো বা ৮৩০ কোটি ডলার) ছাড় নিয়ে ২২ মে বৈঠকে বসে ইসিবি, আইএফ ও ইউরোজোনের অর্থমন্ত্রীরা।

আগামী জুলাইয়ের মধ্যে গ্রিসকে এই অর্থ বিদেশি ঋণদাতাদের পরিশোধ করতে হবে।

সরকারের আশা ছিল, ২২ মে ইউরোজোনের অর্থমন্ত্রীদের বৈঠকে ঋণের অনুমোদন পাবে গ্রিস।

কিন্তু বৈঠকে একমতে পৌঁছাতে ব্যর্থ হয় মন্ত্রীরা। ফলে গ্রিস আপাতত এই অর্থ ছাড় পাচ্ছে না।

কোনো দেশ বা প্রতিষ্ঠান চরম অর্থনৈতিক সংকটে পড়লে বা নিজেদের দেউলিয়া ঘোষণা করলে জরুরিভিত্তিতে আর্থিক সহায়তা দেওয়ার একটি প্রত্যয় হচ্ছে বেল আউট।

তবে আশা এখনো জিইয়ে রেখেছে সংশ্লিষ্টরা। আগামী ১৫ জুন ইউরোগ্রুপের বৈঠক সামনে এ ব্যাপারে অনানুষ্ঠানিক আলোচনা হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

এদিকে, বেলআউটের কিস্তি পেতে মরিয়া হয়ে উঠেছে গ্রিস। আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল ও জার্মানির ঋণ পরিশোধ করতে ইতোমধ্যে সরকার চালু করেছে কর বৃদ্ধি ও পেনশন কমানোর মতো ব্যয় সংকোচনের নানা সংস্কার নীতি।

তবে এটা করে আরও বিপাকে পড়েছে প্রধানমন্ত্রী অ্যালেক্সিস সিপ্রাস। সরকারের নীতির বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমেছে আম জনতা।

সম্প্রতি নৌপথ, আকাশ পথ, রেলপথ বন্ধ করারও নজির দেখা গেছে।

শাহীন

এই বিভাগের আরো সংবাদ