স্বর্ণের দোকান খোলা থাকবে, ধর্মঘট প্রত্যাহার
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

স্বর্ণের দোকান খোলা থাকবে, ধর্মঘট প্রত্যাহার

অনির্দিষ্টকালের জন্য ডাকা ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছে সোনা ব্যবসায়ীদের সংগঠন বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস)। আজ বৃহস্পতিবার বিকালে বাজুস সারাদেশে সোনার দোকান বন্ধ রাখার ঘোষণা দিয়েছিল। আমিন জুয়েলার্সের নিউমার্কেট শাখায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) অভিযানের প্রেক্ষিতে এ ধর্মঘট আহ্বান করা হয়েছিল। পরে আজ রাতে শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরে এক বৈঠকের পর তারা ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেয়। বাজুস সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে।

বৃস্পতিবার এনবিআরের কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট, ঢাকা দক্ষিণের ধানমন্ডি বিভাগ আমিন জুয়েলার্সের নিউমার্কেট শাখায়  অভিযান চালায়। এর প্রতিবাদে অনির্দিষ্ট কালের ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে বাংলাদেশ জুয়েলারি মালিক সমিতি (বাজুস)। আজ বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টা থেকে এই ধর্মঘট কার্যকর হবে।

বাজুসের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ কুমার আগরওয়ালা অর্থসূচককে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, নিউমার্কেট এলাকায় আমিন জুয়েলার্সের একটি শাখায় অভিযান চালিয়ে কিছু নথি জব্দ করে ও শাখাটির ব্যবস্থাপককে তুলে নিয়ে যায়। এরই প্রতিবাদে সারা দেশে আমরা এই ধর্মঘটের ডাক দিয়েছি।

রাজধানীর বায়তুল মোকাররম মসজিদ মার্কেটে সরেজমিনে দেখা গেছে বিকেল ৫টার পর সেখানে সকল জুয়েলারি দোকান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে ন্যাশনাল জুয়েলার্সের মৌচাক শাখার ব্যবস্থাপক মোহাম্মাদ ইমদাদ মিয়া মুঠোফোনে জানান, সেখানেও সব কয়টি জুয়েলার্স বন্ধ রাখা হয়েছে।

এদিকে বিবিসি বাংলা বাজুসের সহ সভাপতি এনামুল হকের বরাত দিয়ে বলেছে, এনবিআর এর সঙ্গে বাজুসের আর কোনো অভিযান না হওয়া নিয়ে কথা হয়। কিন্তু সেই প্রতিশ্রুতি ভেঙ্গে   আজ আমিন জুয়েলার্সে অভিযান হযওয়ায় তারা এই ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন।

উল্লেখ, শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তর গত কয়েকদিনে দুইদফায় অভিযান চালিয়ে বনানী ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামীর পরিবারের মালিকানাধীন আপন জুয়েলার্স এর পাঁচটি বিক্রয় কেন্দ্র বন্ধ করে দেয়।

বাংলাদেশের শুল্ক গোয়েন্দারা সেসময় বলেছেন আপন জুয়েলার্সের কর্ণধাররা জব্দকৃত সাড়ে ১৩ মন স্বর্ণ এবং ৪২৭ গ্রাম হীরার বৈধ কাগজ দেখাতে পারেননি। তবে এতে করে অন্য স্বর্ণ ব্যবসায়ীদের আতংকিত হওয়ার কোনো কারণ নেই বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছিলেন।

এই বিভাগের আরো সংবাদ