প্রযুক্তি আমদানির মানসিকতা বদলাতে হবে: শিক্ষামন্ত্রী
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

প্রযুক্তি আমদানির মানসিকতা বদলাতে হবে: শিক্ষামন্ত্রী

উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে গবেষণা ও জ্ঞান চর্চা বাড়াতে হবে উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, প্রযুক্তি আমদানি করার মানসিকতা বদলাতে হবে।

তিনি বলেন, আমাদের নিজস্ব সমস্যার সমাধানের লক্ষ্যে নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবন ও তার ব্যবহার করতে হবে। আমরা জ্ঞান ও প্রযুক্তি রপ্তানি করতে পারি-  সেই জায়গায় আমাদের যেতে হবে।

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। ফাইল ছবি

আজ বৃহস্পতিবার জাতীয় শিক্ষা ব্যবস্থাপনা একাডেমি (নায়েম) অডিটরিয়ামে শিক্ষা মন্ত্রণালয়াধীন শিক্ষাখাতে উচ্চতর গবেষণা সহায়তা কর্মসূচি সংক্রান্ত কর্মশালা ও চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন,  উচ্চ শিক্ষার মান উন্নয়ন এবং উচ্চতর গবেষণার জন্য সরকার বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। জাতীয় উন্নয়ন নিশ্চিত করতে উচ্চতর গবেষণায় বিনিয়োগের মাধ্যমে মানসম্পন্ন বিজ্ঞানী, প্রযুক্তিবিদ ও সমাজবিজ্ঞানী গড়ে তুলতে হবে। এ লক্ষ্যে শিক্ষাখাতে উচ্চতর গবেষণা কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, উচ্চতর এবং ফলিত গবেষণার জন্য ২০১০ থেকে ২০১৫ পর্যন্ত ১১৩টি গবেষণা প্রকল্পে ২১ কোটি ৭৭ লাখ টাকা ব্যয় হয়েছে। চলমান গবেষণা কার্যক্রমের আওতায় ২০১৬-১৭ অর্থবছরে  ১৫ কোটি ৩৯ লাখ ৯২ হাজার টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো. আব্দুল্লাহ আল হাসান চৌধুরী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর ড. এস এম ওয়াহিদুজ্জামান, নায়েমের মহাপরিচালক অধ্যাপক প্রফেসর মো. হামিদুল হক, গবেষণা বাছাই কমিটির চেয়ারম্যান প্রফেসর প্রফেসর ড. মেসবাউদ্দিন আহম্মেদ এবং ব্যানবেইসের পরিচালক মো. ফসিউল্লাহ বক্তৃতা করেন।

পরে মন্ত্রী ১৬৬টি গবেষণা প্রকল্পের অনুকুলে ১২ কোটি ৬০ লাখ ২২ হাজার টাকার চেক বিতরণ করেন। ১০টি প্রকল্পের ৩য় কিস্তি, ৮০টি প্রকল্পের ২য় কিস্তি এবং ৭৬টি প্রকল্পের প্রথম কিস্তির টাকার চেক হস্তান্তর করা হয়। গবেষণা প্রকল্পের অনুদান, মুখ্য গবেষক ও সহকারি গবেষকের সম্মানী হিসেবে এ চেক দেওয়া হয়।

উল্লেখ, গাণিতিক বিজ্ঞান, জীবন সম্পর্কিত বিজ্ঞান, ভৌত বিজ্ঞান, সামাজিক বিজ্ঞান, আইসিটি, মেরিন সাইন্স এবং এসডিজি ও  ৭ম পঞ্চবার্য়িক পরিকল্পনার লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে সহায়ক গবেষণার জন্য এ অনুদান দেওয়া হচ্ছে।

অর্থসূচক/আজম/এসএম

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ