পুরুষের জেলে প্রথম নারী সুপার শকুন্তলা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

পুরুষের জেলে প্রথম নারী সুপার শকুন্তলা

ঘরে-বাইরে নানা ক্ষেত্রে নিজেদের অধিকার নিয়ে ক্রমাগত লড়াই করে চলেছে নারীরা। লৌহকপাটের ভেতরেও পুরুষদের সঙ্গে লড়াইয়ে পায়ে পা মিলিয়ে এগোনোর প্রমাণ দিলেন মেয়েরা।

প্রথমবারের মত কলকাতা রাজ্যের একটি পুরুষ জেলের সুপার পদে নিযুক্ত হলেন এক নারী। তার নাম শকুন্তলা সেন। গত ১ মার্চ বাঁকুড়া জেলার পুরুষ জেলের স্থায়ী সুপার হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন তিনি। এবং কয়েকদিনের মধ্যেই দায়িত্ব দায়িত্ব বুঝে নেবেন বলে জানা গেছে। এ রাজ্যে এর আগেও নারী জেলের সুপার হয়েছেন নারীরা। তবে তাঁদের কাউকেই পুরুষ জেলের দায়িত্ব দেওয়া হয়নি বলে আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে।

প্রথম নারী কারা সুপার হয়েছেন শকুন্তল।

প্রথম নারী কারা সুপার হয়েছেন শকুন্তল।

জেলখানার হিসেব অনুযায়ী সেলে রক্ষী ও অফিসারের পদে নারীর সংখ্যা অনেকটাই কম। সব পুরুষ সেলেই অনেক দাগী অপরাধী থাকে। দুষ্কর্মের শাস্তি ভোগ করতে করতেও তারা নিজেদের মধ্যে ঝামেলায় জড়িয়ে পড়ে প্রায়ই।

এছাড়া তাদের অনেকে জেলের ভিতর থেকেও অপরাধ কর্মের নেতৃত্ব দিয়ে যায়। নারীদের পক্ষে এই ধরনের অপরাধীদের নিয়ন্ত্রণে রাখা কঠিন ভেবেই এত দিন পর্যন্ত রাজ্যের পুরুষ জেলে কোনও নারী সুপার নিযুক্ত করা হয়নি বলে জানাচ্ছেন কারা দপ্তরের শীর্ষ কর্তারা।

গত জানুয়ারিতে জানুয়ারিতে ‘হাই সিকিওরিটি’ তিহাড় পুরুষ জেলের প্রথম নারী সুপার হিসেবে দায়িত্ব নিয়েছেন অঞ্জু মঙ্গলা। তার ২ মাসের মাথায় বাঁকুড়ার পুরুষ জেলের সুপার-পদে শকুন্তলার নিয়োগ নারীদের মুকুটে নতুন পালক। তিহাড়ে ডিজি-র পদে এর আগে বসেছেন কিরণ বেদী, বিমলা মেহরার মতো জাঁদরেল নারী অফিসার।

ভারতে পুরুষ ও নারী কারারক্ষীর আনুপাতিক হার বেশ কম।

ভারতে পুরুষ ও নারী কারারক্ষীর আনুপাতিক হার বেশ কম।

তবে সেখানকার পুরুষ জেলে প্রথম নারী সুপার অঞ্জুই।

‘প্রথম যখন সংশোধনাগারে কাজ করতে আসি, ভয় একটু ছিলই। দীর্ঘদিন কাজ করতে করতে সেটা চলে গিয়েছে। বন্দি থাকতে বাধ্য হলেও জেলের আবাসিকেরা কিন্তু আপনার, আমার মতোই। এখন বেশ ভালই লাগে ওদের সঙ্গে কাজ করতে। আর পুরুষ-নারী বলে আমি অন্তত কোনও তফাত করি না’ বলছিলেন শকুন্তলাদেবী।

অর্থসূচক/তাবাচ্ছুম/কাঙাল মিঠুন

এই বিভাগের আরো সংবাদ