অর্থনৈতিক সক্ষমতা সূচকে ১ ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

অর্থনৈতিক সক্ষমতা সূচকে ১ ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ

বৈশ্বিক অর্থনৈতিক প্রতিযোগিতা সক্ষমতা সূচকে আগের বছরের তুলনায় এক ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ। ১৩৮টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান এখন ১০৬। আগের বছরে ১০৭তম অবস্থানে ছিল বাংলাদেশ। বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের (ডব্লিউইএফ) প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

প্রতিবছর বিশ্বের বিভিন্ন দেশের অর্থনৈতিক অবস্থার উপর জরিপ চালিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম (ডব্লিউইএফ)। বাংলাদেশ সম্পর্কে এই প্রতিবেদন তৈরিতে সহযোগিতা করেছে সিপিডি।

cpd

সিপিডির উদ্যোগে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের বৈশ্বিক অর্থনৈতিক প্রতিযোগিতা সক্ষমতা প্রতিবেদন প্রকাশ।

আজ বুধবার রাজধানীর সিরডাপ মিলেনায়তনে এই প্রতিবেদন প্রকাশ করে বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়লগ (সিপিডি)। সাংবাদিকদের কাছে প্রতিবেদনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন প্রতিষ্ঠানটির গবেষণা বিভাগের অতিরিক্ত পরিচালক ড. খন্দকার গোলাম মোয়াজ্জেম।

তিনি বলেন, বৈশ্বিক প্রতিযোগিতা সক্ষমতা সূচকে গত বছর যে সব দেশ শীর্ষ দশের মধ্যে অবস্থান করছিল এ বছরও শীর্ষে রয়েছে সে দেশগুলো। এ সূচকের প্রথম অবস্থানে রয়েছে সুইজারল্যান্ড, দ্বিতীয় ও তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে যথাক্রমে সিঙ্গাপুর এবং যুক্তরাষ্ট্র।

খন্দকার গোলাম মোয়াজ্জেম জানান, বৈশ্বিক অর্থনৈতিক প্রতিযোগিতা সক্ষমতা সূচকে জার্মানিকে পেছনে ফেলে চতুর্থ স্থান দখল করেছে নেদারল্যান্ড। জার্মানি এখন পঞ্চম স্থানে আছে। এছাড়া ৬ষ্ঠ, ৭ম, ৮ম, ৯ম এবং ১০ অবস্থানে রয়েছে যথাক্রমে সুইডেন, যুক্তরাজ্য, জাপান, হংকং এবং ফিনল্যান্ড।

সিপিডির অতিরিক্ত পরিচালক আরও জানান, দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে শ্রীলঙ্কা ছাড়া সবগুলো দেশেরই ইতিবাচক পরিবর্তন হয়েছে। এদের মধ্যে ভারতের অবস্থান সবচেয়ে ভালো। গত বছরের ৫৫তম স্থানে থাকা ভারত ৩৯তম স্থান দখল করেছে। এছাড়া শ্রীলঙ্কা, ভুটান, নেপাল ও পাকিস্তানের অবস্থান যথাক্রমে ৭১, ৯৭, ৯৮ ও ১২২তম।

এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন সিপিডির ফেলো ড. দেব্রপ্রিয় ভট্টাচার্য, নির্বাহী পরিচালক প্রফেসর মোস্তাফিজুর রহমান, সিনিয়র সহকারী গবেষক কিশোর কুমার বাসেক, শিক্ষনবীশ গবেষক মনিকা তাসনিম প্রমুখ।

অর্থসূচক/মুন্নাফ/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ