ব্যালন ডি’অরের নির্বাচক আবারও সাংবাদিকরা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

ব্যালন ডি’অরের নির্বাচক আবারও সাংবাদিকরা

১৯৫৬ সালে ফরাসি সাময়িকী ফ্রান্স ফুটবলের উদ্যোগে চালু হওয়া ব্যালন ডি’অর পুরস্কারের নির্বাচক হিসেবে আবারও একক কর্তৃত্ব পেতে যাচ্ছেন ক্রীড়া সাংবাদিকরা। ২০১০ সালে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফার সঙ্গে ফ্রান্স ফুটবলের চুক্তির পর এই কর্তৃত্ব হারিয়েছিলেন তারা। ক্রীড়া সাংবাদিকদের কর্তৃত্ব ফিরিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি এ পুরস্কারের জন্য খেলোয়াড়ের মনোনয়ন তালিকাও বড় করছে ফ্রান্স ফুটবল।

ফিফার সঙ্গে ৬ বছরের চুক্তি শেষ হওয়ায় আবার নিজেদের নিয়মে ব্যালন ডি’অর দেওয়ার প্রক্রিয়ায় ফিরে যাচ্ছে ফরাসি সাময়িকীটি। বর্ষসেরা ফুটবলার পুরস্কারের পরিকল্পনা নিয়ে ফিফা এখন পর্যন্ত কিছু না বললেও ব্যালন ডি’অরের দেওয়ার নিয়মে বেশ কিছু পরিবর্তন আনছে ফ্রান্স ফুটবল।balon-de-oro

ফিফা ব্যালন ডি’অর দেওয়ার ক্ষেত্রে ফিফা সদস্য দেশগুলোর জাতীয় ফুটবল দলের অধিনায়ক ও কোচের ভোট দেওয়ার নিয়ম ছিল। ব্যালন ডি’অরের একক কর্তৃত্ব ফ্রান্স ফুটবল ফিরে পাওয়ায় সেই নিয়ম বাতিল করা হয়েছে। এখন থেকে আগের মতোই আন্তর্জাতিক ক্রীড়া সাংবাদিকদের একটি দল ব্যালন ডি’অর পুরস্কারের জন্য সেরা খেলোয়াড় বাছাই করবে।

ফিফা ব্যালন ডি’অর পুরস্কারের জন্য ২৩ জন ফুটবলারের প্রাথমিক তালিকা থেকে সেরা ৩ জনের নাম ঘোষণা করা হতো। ফাইনালিস্টদের মধ্য থেকে একজনকে ফিফা ব্যালন ডি’অর দেওয়া হতো।

ফ্রান্স ফুটবল জানিয়েছে, এখন থেকে প্রাথমিক তালিকায় ২৩ জনের পরিবর্তে ৩০ জন ঠাঁই পাবেন। আর কোনো সংক্ষিপ্ত তালিকা তৈরি হবে না। ৩০ জনের তালিকা থেকে সরাসরি চূড়ান্ত বিজয়ীকে মনোনয়ন দেওয়া হবে। বছরের শুরুতে অর্থাৎ জানুয়ারিতে ফিফা ব্যালন ডি’অর পুরস্কার দেওয়া হলেও এখন থেকে বছরের শেষে ব্যালন ডি’অর দেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, ১৯৫৬ সাল থেকে সাংবাদিকদের ভোটে ইউরোপের বর্ষসেরা খেলোয়াড়কে ব্যালন ডি’অর পুরস্কার দেওয়া হতো। অন্যদিকে ১৯৯১ সাল থেকে ফিফার সব সদস্য দেশের কোচ ও অধিনায়কদের ভোটে ‘ফিফা ওয়ার্ল্ড প্লেয়ার অব দ্য ইয়ার’ পুরস্কার দিয়ে আসছিল ফিফা। ২০১০ সালে ফিফার সঙ্গে ফ্রান্স ফুটবলের চুক্তির মাধ্যমে দুটি পুরস্কার এক করা হয়েছিল।

অর্থসূচক/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ