'২ বছরে গ্রামে যাবে টেলিটক'
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

‘২ বছরে গ্রামে যাবে টেলিটক’

২ বছরের মধ্যে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে টেলিটকের নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণ হবে বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। তিনি জানান, দেশের সরকারি মোবাইল অপারেটরের নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণ পরিকল্পনা বাস্তবায়নে বিভিন্ন খাত থেকে ৪৫০০ কোটি টাকার অর্থায়ন আসছে।

আজ বৃহস্পতিবার গুলশানে টেলিটকের নতুন কাস্টমার কেয়ার সেন্টার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এ কথা জানান প্রতিমন্ত্রী। তিনি বলেন, নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণ ও লোকবল বৃদ্ধির মাধ্যমে টেলিটককে প্রতিযোগিতায় সক্ষম করার লক্ষ্যে নতুন অর্থায়ন করা হচ্ছে। গ্রামেগঞ্জে নেটওয়ার্ক না পেলে গ্রাহকরা অন্য অপারেটরে যেতে বাধ্য হবে। তাই নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণকেই বেশি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে।

teletalkতারানা হালিম জানান, টেলিটকের নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে ইতোমধ্যে ৬১০ কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছে একনেক। প্রত্যন্ত অঞ্চলে টেলিটকের নিরবিচ্ছিন্ন নেটওয়ার্ক নিশ্চিত করতে এই অর্থ ব্যয় হবে। পরবর্তীতে জনবল সঙ্কটের সমাধান করা হবে।

তিনি আরও জানান, নিজস্ব অর্থয়নে ৭০০ কোটি টাকার একটি প্রকল্প শুরু হয়েছে। আরেকটি ৩ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প একনেকে অনুমোদনের অপেক্ষায় আছে। সেটি অনুমোদিত হলে ইউনিয়ন, গ্রাম পর্যায়েও থ্রিজি সেবা যাওয়া যাবে।

গ্রাহকদের টেলিটক সিম ব্যবহারের আগ্রহ রয়েছে জানিয়ে তারানা বলেন, ২০১৮ সালের মধ্যে নেটওয়ার্কের পরিকল্পনা সম্পূর্ণভাবে বাস্তবায়ন হলে টেলিটক খুব শক্তপোক্তভাবে বাজারে প্রতিযোগিতা করতে পারবে।

টেলিটক কর্মকর্তারা জানান, নতুন পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০১৭ সালের জানুয়ারির মধ্যে ২০টি গ্রাহক সেবাকেন্দ্র চালুর পরিকল্পনা নিয়েছে টেলিটক। সে হিসাবে প্রতি মাসে তিনটি করে সেবাকেন্দ্র চালু করতে হবে। আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন হয়েছে।

আজকের এ অনুষ্ঠানে দুটি ডাটা কার্ড সেবাও উদ্বোধন করেন প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। সেগুলো হলো- ৯ টাকায় ৫০ এমবি, ১৯ টাকায় ১২৫ এমবি। একইসঙ্গে ফেসবুকের এক ফলোয়ারের অনুরোধে সাড়া দিয়ে আসন্ন ঈদে ৫০ টাকায় এক জিবি ইন্টারনেট একমাসের মেয়াদসহ চালুর জন্য কর্মকর্তাদের পরামর্শ দিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।

অর্থসূচক/

এই বিভাগের আরো সংবাদ