অগ্রিম টিকেট বিক্রির দ্বিতীয় দিনে কমলাপুরে উপচেপড়া ভিড়
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

অগ্রিম টিকেট বিক্রির দ্বিতীয় দিনে কমলাপুরে উপচেপড়া ভিড়

আসন্ন পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষে ট্রেনের অগ্রিম টিকেট বিক্রি দ্বিতীয় দিনের মতো শুরু হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে এই টিকেট বিক্রি শুরু হয়। আগামী ৮ সেপ্টেম্বর তারিখে যাত্রার জন্য ট্রেনের অগ্রিম টিকেট পেতে গতকাল সোমবার রাত থেকেই কমলাপুর রেল স্টেশনে ভিড় জমাতে শুরু করে টিকেট প্রত্যাশীরা।

প্রিয়জনের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে টিকেট নামক সোনার হরিণের জন্য যুদ্ধে নেমেছেন রাজধানীবাসী। টিকিট প্রত্যাশীরা গতকাল সোমবার রাত থেকেই লাইনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করছেন কাঙ্খিত টিকেটের জন্য।

Train ticket

ঈদুল আযহা উপলক্ষে বাড়ি যেতে ট্রেনের অগ্রিম টিকেট নিতে ঢাকার কমলাপুর রেল স্টেশনে টিকেটপ্রত্যাশীদের ভিড়। ছবি: মহুবার রহমান

গতকাল রাত ১২টা থেকে লাইনে দাঁড়িয়ে অবশেষে আজ মঙ্গলবার সকালে জামালপুর যাত্রার টিকেট পেয়েছেন বেসরকারি ব্যাংকে চাকরিজীবী রবিউল ইসলাম। তিনি বলেন, ৯ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকার পর টিকেট পেয়েছি। ঈদে বাড়ি যেতে পারবো। পরিবারের সবাইকে নিয়ে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে পারবো। অনেক ভালো লাগছে।

আগামী ৮ সেপ্টেম্বর রংপুর এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকেট প্রত্যাশী ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থী জাহাঙ্গীর সকাল ৬টায় এসে লাইনে দাঁড়িয়েছেন। এখনও টিকেট পাননি তিনি। জাহাঙ্গীর অর্থসূচককে বলেন, গত ঈদে বাড়ি গিয়েছিলাম। আবার এই ঈদেও যাচ্ছি। টিকেট পেতে বেগ পোহাতে হলেও টিকেট পেলে সব কষ্ট দূর হয়ে যায়।

কমলাপুর রেলস্টেশনে দায়িত্বরত পুলিশ কর্মকর্তা মজিদ জানান, ভোর থেকে দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে টিকেটের জন্য অপেক্ষা করছে যাত্রীরা। এখন পর্যন্ত কোনো অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটেনি। যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী কঠোর অবস্থানে রয়েছে।

গতকাল সোমবার থেকে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হয়। এরপর ৩১ আগস্ট থেকে ২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত যথাক্রমে ৯, ১০ ও ১১ সেপ্টেম্বর তারিখে যাত্রার টিকেট দেওয়া হবে। এছাড়া ঈদ পরবর্তী সময়ে রাজশাহী, খুলনা, রংপুর, দিনাজপুর ও লালমনিরহাট স্টেশন থেকে বিশেষ ব্যবস্থাপনায় ৫ থেকে ৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত যথাক্রমে ১৪, ১৫, ১৬, ১৭ এবং ১৮ সেপ্টেম্বর তারিখে যাত্রার অগ্রিম টিকেট বিক্রি করা হবে। প্রত্যেক ব্যক্তি সর্বোচ্চ চারটি টিকিট কিনতে পারবেন। ঈদের জন্য বিক্রিত অগ্রিম টিকেট ফেরত দেওয়া কিংবা পরিবর্তন করা সম্ভব হবে না।

অর্থসূচক/মেহেদী/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ