শিল্পকলায় মঞ্চায়ন হলো বিখ্যাত নাটক ’সাজাহান’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » বিনোদন

শিল্পকলায় মঞ্চায়ন হলো বিখ্যাত নাটক ’সাজাহান’

‘যদি এই আজ সংসারের অবস্থা, তবে এক মহাব্যাধি তার সর্বস্ব ছেয়েছে’। বৃদ্ধ সাজাহানের এই ক্ষেদোক্তি শুধু কালিক নয় মহাকালিক, আঞ্চলিক নয় বৈশ্বিক।

গতকাল শুক্রবার আবৃত্তি একাডেমির দেড় যুগ পূর্তি উপলক্ষ্যে সন্ধ্যা ৭টায় রাজধানীর শিল্পকলা একাডেমির সংগীত, নৃত্যকলা ও আবৃত্তি মিলনায়তনে মঞ্চায়ন করা হয় দ্বিজেন্দ্রলাল রায়ের বিখ্যাত নাটক ‘সাজাহান’। দ্বিজেন্দ্রলাল রায়ের রচনায় নাটকটি নির্দেশনা দিয়েছেন মৃন্ময় মিজান।

বিখ্যাত নাটক সাজাহানের একটি দৃশ্য

বিখ্যাত নাটক সাজাহানের একটি দৃশ্য

একাডেমির ১৬ জন আবৃত্তিশিল্পী এতে অংশগ্রহণ করেন। আবৃত্তি একাডেমির ১৯তম প্রযোজনা এই নাটকটির এটি দ্বিতীয় মঞ্চায়ন। এতে সাজাহান চরিত্রে অভিনয় করেন-মৃন্ময় মিজান, দারা চরিত্রে কামরুল ইসলাম জুয়েল, ঔরংজীব-হাবিবুর রহমান সোহন, মোরাদ-মনজুর হোসাইন, সুজা-তাজুল ইসলাম তপন, জয়সিংহ-অনিক হোসাইন, দিলীর খাঁ- আব্দুর রহমান, মোহাম্মদ- আবু বকর দাউদ তুহিন, যশোবন্ত সিংহ- মাহবুবুর রহমান, দিলদার- হাসানুল বান্না, সিপার-মেহেদি হাসান, জাহানারা- দিলসাদ জাহান পিউলি, পেয়ারা-সারমিন ইসলাম জুঁই, নাদিরা- হিমাদ্রি মোর্শেদ, জহরৎ- আরমিনা বেগম নিম্মি ও মহামায়া চরিত্রে- সোনিয়া পিংকি কন্ঠ প্রদান করেন।

আবৃত্তি একাডেমির দেড়যুগ পূর্তি উপলক্ষে ২ দিনব্যাপী আবৃত্তি উৎসবের প্রথমদিন গতকাল শুক্রবার বিকেল ৬ টায় উদ্বোধন ও র‌্যালির মাধ্যমে অনুষ্ঠান শুরু হয়। ২ দিনব্যাপী এই উৎসবের উদ্বোধন করেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ। র‌্যালি শেষে গেট খুলে দেওয়া হয় আগত দর্শক- শ্রোতাদের উদ্দেশ্যে।

বিখ্যাত নাটক সাজাহানে কন্ঠ দেওয়া আবৃত্তি শিল্পীরা।

বিখ্যাত নাটক সাজাহানে কন্ঠ দেওয়া আবৃত্তি শিল্পীরা।

ঠিক সন্ধ্যা ৭টায় সাজাহান-জাহানারার কথোপকথন দিয়ে শুরু হয় ‘সাজাহান’ নাটকের শ্রুতিরূপ। এর পর একে একে মহম্মদ, ঔরংজীব, যশোবন্ত, জয়সিংহ, মহামায়া ও জহরৎরা ফুটিয়ে তোলেন ভারতবর্ষের ভগ্নপিতৃহৃদয়ের বৃথা আস্ফালন। কখনো ভেঙে পড়া বৃদ্ধের সকরুণ আহাজারি, কখনো দিগ্বিদিক জ্ঞানশূন্য মাতালের প্রলাপ স্মরণ করিয়ে দিচ্ছিল কিং লিয়ার-এর কথা। অন্যদিকে জাহানারা ঐরংজীবের বাদানুবাদ, যশোবন্ত ঔরংজীবের তীব্র শ্লেষাত্মক বাক্য বিনিময়। মহম্মদের বিদ্রোহ, জয়সিংহের পালায়নপর নীতি আর পিতৃহারা বালিকা জহরৎ এর তীব্র বাক্যবাণ পুরো সাজাহান নাটকের প্রতিনিধিত্ব করে।

দুই দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় দিন শনিবার থাকবে আলোচনা সভা ও সনদ বিতরণ অনুষ্ঠান। আবৃত্তি একাডেমির কর্মশালার ২৬ ও ২৭তম ব্যাচের শিক্ষার্থীদের সনদপত্র দেয়া হবে দ্বিতীয় দিন। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক। বিশেষ অতিথি থাকবেন জাতীয় কবিতা পরিষদের সভাপতি ড. মুহাম্মদ সামাদ, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক হাসান আরিফ ও প্রকৌশলী মো. সাহাবুদ্দীন সৈকত।

উৎসবের দ্বিতীয় দিন সন্ধ্যা ৭টায় মঞ্চায়িত হবে আবৃত্তি প্রযোজনা ‘একদিন খুঁজেছিনু যারে’। কবি জীবনানন্দ দাশের কবিতা নিয়ে তৈরি প্রযোজনাটি নির্দেশনা দিয়েছেন দিলসাদ জাহান। এটি আবৃত্তি একাডেমির ৪৯তম প্রযোজনা।

অনুষ্ঠানের সমন্বয়ক ও দলের সাধারণ সম্পাদক কামরুল ইসলাম বলেন, আমরা আবৃত্তিকে প্রাতিষ্ঠানিকরূপে দেখতে চাই। শিল্প হিসেবে নাটক, গান ও নৃত্যের যেমন একটা প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো আছে, আবৃত্তির সেরকম নেই। আমরা চাই সহশিক্ষা হিসেবে শিক্ষা কারিকুলামেও আবৃত্তিকে যুক্ত করা হোক।

অর্থসূচক/মেহেদী

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ