১০ বেসরকারি মেডিকেল কলেজকে কোটি টাকা করে জরিমানা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

১০ বেসরকারি মেডিকেল কলেজকে কোটি টাকা করে জরিমানা

২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তিতে অনিয়মের কারণে ঢাকার ১০টি বেসরকারি মেডিকেল কলেজকে এক কোটি টাকা করে জরিমানা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট।

আজ রোববার প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার (এস.কে.) সিনহার নেতৃত্বাধীন চার সদস্যের আপিল বেঞ্চ এই আদেশ দেয়।

Court

আদালত-প্রকীকী

হাইকোর্ট সূত্রে জানা যায়, সরকার ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত অনুসরণ না করে ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তি করেছিল ওই ১০টি বেসরকারি মেডিকেল কলেজ। এর সত্যতা প্রমাণিত হওয়ায় প্রত্যেক মেডিকেল কলেজকে এক কোটি টাকা করে জরিমানা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

কলেজগুলো হল- এম.এইচ. শমরিতা মেডিকেল কলেজ, সিটি মেডিকেল কলেজ, নাইট এঙ্গেল মেডিকেল কলেজ, জয়নুল হক শিকদার মহিলা মেডিকেল কলেজ, ঢাকা সেন্ট্রাল ইন্টারন্যাশনাল মেডিকেল কলেজ, ইস্ট-ওয়েস্ট মেডিকেল কলেজ, তাইরুন নেছা মেমোরিয়াল মেডিকেল কলেজ, আইচ মেডিকেল কলেজ, কেয়ার মেডিকেল কলেজ এবং আশিয়ান মেডিকেল কলেজ।

আগামী ১০ দিনের মধ্যে এই জরিমানার সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধের জন্য সংশ্লিষ্ট মেডিকেল কলেজ কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছে দেশের সর্বোচ্চ আদালত। জরিমানার অর্ধেক টাকা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়কে এবং বাকি টাকা কিডনি ও লিভার ফাউন্ডেশনকে দিতে হবে।

আদালতের আদেশ অনুযায়ী, প্রাপ্ত অর্থ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ স্থায়ী সঞ্চয় (ফিক্সড ডিপোজিট) করবে। এই সঞ্চয় থেকে পাওয়া মুনাফা দরিদ্র শিক্ষার্থীদের মধ্যে বৃত্তি হিসেবে দেবে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। অর্থের ওপর ভ্যাট আরোপ না করতে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডকে (এনবিআর) নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

জরিমানা অর্থ পরিশোধ সাপেক্ষে ১৫৩ শিক্ষার্থীকে রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও প্রবেশপত্র দিতে কলেজগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে আদালত। একইসঙ্গে আদালতের নির্দেশে আরও বলা হয়েছে, জরিমানা দিতে ব্যর্থ হলে কলেজগুলো ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তি করতে পারবে না। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এই বিষয়টি তদারক করবে।

আদালতে আইনজীবী এ.এফ.এম. মেসবাহ উদ্দিনকে সঙ্গে নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। বেসরকারি মেডিকেল কলেজগুলোর পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মাসুদ রেজা সোবহান ও আইনজীবী সাইফুল করিম। শিক্ষার্থীদের পক্ষে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী আবদুল বাসেত মজুমদার ও এ.জে. মোহাম্মদ আলী।

১০ বেসরকারি মেডিকেল কলেজের বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেওয়া হবে না এবং জরিমানা করা হবে না, গত ১০ আগস্ট তা জানতে চায় দেশের সর্বোচ্চ আদালত। সংশ্লিষ্ট কলেজের চেয়ারম্যান ও অধ্যক্ষকে আজকের (২১ আগস্ট) মধ্যে ব্যাখ্যা দিতে বলেছিল আদালত। ১৫৩ শিক্ষার্থীর বিষয়ে হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের করা লিভ টু আপিলের শুনানিতে ওই আদেশ দিয়েছিলেন আপিল বিভাগ।

অর্থসূচক/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ