সেরা ৫ চলচ্চিত্রের ৫ ভুল
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

সেরা ৫ চলচ্চিত্রের ৫ ভুল

একটি চলচ্চিত্র তৈরিতে গল্প, ক্যামেরা, শ্যুটিং যেমন প্রয়োজন তেমনি এদের মধ্যে মেলবন্ধনটাও খুব জরুরী। নইলে খুব সুক্ষ্ণ কিছু ভুল থেকে যেতে পারে। চলচ্চিত্রের ভাষায় যাকে প্লট এরর, কন্টিন্যুটি এরর, ফ্র্যাকচুয়েল এরর ইত্যাদি বলে।

বেশ কিছু বিখ্যাত ও ব্যবসাসফল ছবিতেও এরকম ভুল আছে। তেমনি ৫ টি চলচ্চিত্রের কিছু ভুল নিয়ে আজকের আয়োজন।

জুরাসিক ওয়ার্ল্ড ২০১৫

কোলি ট্রেভরোর পরিচালনায় জুরাসিক পার্ক সিরিজের ২০১৫ সাল মুক্তি পাওয়া এই ছবিটির বাজেট ছিলো ১৫০ মিলিয়ন আর আয় করেছে ১.৬৭০ বিলিয়ন ডলার।

মিলিটারি টিম যখন একটি পালানো আই-রেক্স ডাইনোসরকে ধাওয়া করে অবস্থান বের করে তখন নিয়ন্ত্রণ রুমে দেখানো হয় চার জায়গায় অবস্থিত চার সেনার হৃৎস্পন্দন একই রকম। প্রকৃতপক্ষে যখন কেউ একটি ডাইনোসরের সাথে যুদ্ধ করে আর একজন রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকে তখন তাঁদের হৃদস্পন্দন নিশ্চয়ই এক হওয়ার কথা নয়।

Jurassic world

ব্রেভ হার্ট ১৯৯৫

মেল গিভসনের পরিচালনা ও অভিনয়ে ব্রেভ হার্ট চলচ্চিত্রটির মূল বিষয় হলো ১৩ শতকের স্কটিশ স্বাধীনতা পাওয়ার প্রথম যুদ্ধের উপর। যেখানে উইলিয়াম ওয়ালেস নামের একজন সৈন্য পুরো দলকে রাজা প্রথম এডওয়ার্ডের বিরুদ্ধে পরিচালনা করছেন।

পুরো সেটে ঘোড়া, নাঙা তলোয়ার দিয়ে পুরনো যুদ্ধের আবহাওয়া তৈরী করা হলেও একটি সাদা রঙয়ের গাড়ি কি সেখানে মানায়?

Brave heart

জ্যাঙ্গো আনচেইনড (২০১২)

কোয়েনটিন টারানটিও’র কাহিনী এবং পরিচালনায় এই চলচ্চিত্রের প্রেক্ষাপট হলো টেক্সাসের ১৮৫৮ সালের একজন কৃষ্ণাঙ্গ দাসের কাহিনীর উপর। জ্যাঙ্গো চরিত্রে অভিনয় করেছেন জ্যামি ফক্স। ছবির একটা দৃশ্যে দেখানো হয় দাসত্ব থেকে মুক্ত জ্যাঙ্গো গোল ফ্রেমের একটি সানগ্লাস পরেছেন। বস্তুত আমেরিয়াকায় আভির্ভাব ঘটেছে আরো পরে। ১৯৭০ এর দশকে।

Django

ডাই অ্যানাদার ডে ২০০২

জেমস বন্ড সিরিজের এই ছবিটি মুক্তি পায় ২০০২ সালে। লি তামাহোরির পরিচালনায়  এ্যাকশান হিরো পিয়ের্সে ব্রুসনান এবং হ্যালি বেরি। ছবির একটা অংশে বেরি খলনায়িকা একজনের সাথে তলোয়ার যুদ্ধের সময় পেট কেটে যায়। সে রাতেই নায়ক পিয়ের্সে যখন বেরির পেটে হীরা রাখেন তখন দেখা যায় পেট কাটা তো দূরের কথা কোনো দাগ ও নেই।

Die another day 2

ইনগ্লোরিয়াস বাস্টার্ডস (২০০৯)

জার্মান ও আমেরিকার যৌথ প্রযোজনায় ছবিটির পরিচালক কোয়েনটিন টারানটিও।

হিটলারের ঘাতক আততায়ীদের নিয়ে বানানো এই চলচ্চিত্রে ব্র্যাডপিট যখন সামরিক কর্মকর্তাকে বন্দী করে মাথা নাতসি চিহ্ন এঁকে দিচ্ছে সেই সময়ে চিহ্ন আঁকার আগে হাত বাঁধা থাকলেও পরে সিনেই খোলা হাতে মাটি আঁকড়ে ধরার ফ্রেম চলে আসে। বাঁধা হাত কিভাবে খুলে গেলো পরিচালক সেটা দেখাননি।

Inglorious3

এই বিভাগের আরো সংবাদ