ওষুধ কারখানা স্থাপনে আরও সতর্ক হতে বললেন অর্থমন্ত্রী
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

ওষুধ কারখানা স্থাপনে আরও সতর্ক হতে বললেন অর্থমন্ত্রী

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, দেশের ওষুধ শিল্পের কারখানা স্থাপনে আরও সতর্ক হতে হবে; যাতে গুণমান ঠিক রেখে ওষুধ রপ্তানি করা যায়। কারণ খাতটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর খিলক্ষেতে লা মেরিডিয়ান হোটেলে যুক্তরাষ্ট্রে ওষুধ রপ্তানির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শিয়া স্টিফেন্স বার্নিকাট, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম উপস্থিত ছিলেন।

লা মেরিডিয়ান হোটেলে যুক্তরাষ্ট্রে ওষুধ রপ্তানির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখছেন অর্থমন্ত্রী। ছবি মহুবার রহমান।

লা মেরিডিয়ান হোটেলে যুক্তরাষ্ট্রে ওষুধ রপ্তানির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখছেন অর্থমন্ত্রী। ছবি মহুবার রহমান।

অর্থমন্ত্রী বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে ওষুধ রপ্তানির সুযোগ পাওয়া অত্যন্ত কঠিন। এই কঠিন কাজটি করতে পেরেছে বেক্সিমকো ফার্মা। আমি তাদের স্বাগত জানাই।

বাংলাদেশের ওষুধ শিল্পের অবস্থান শক্তিশালী হচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, শিল্প উদ্যোক্তাদের আরও সর্তকভাবে মানসম্মত কারখানা স্থাপন করতে হবে। গুণমান সমুন্নত রেখে ওষুধ উৎপাদন করতে হবে। আমি মনে করি বেক্সিমকো ফার্মা সেই অবস্থানে রয়েছে।

‘বাংলাদেশ এখন প্রায় ১৭০ দেশে ওষুধ রপ্তানি করে থাকে। তবে এর পরিমাণ ব্যাপক নয়। এটা বাড়ানোর সুযোগ রয়েছে।’

Beximco

রাজধানীর খিলক্ষেতে লা মেরিডিয়ান হোটেলে যুক্তরাষ্ট্রে ওষুধ রপ্তানির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অতিথিরা।

অনুষ্ঠানে সালমান এফ রহমান বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে ওষুধ রপ্তানি করার মাধ্যমে এই শিল্পে একটি নতুন যুগের সুচনা হলো; যা কোম্পানির জন্য বড় অর্জন। আশা করি, বেক্সিমকো তার অবস্থান ধরে রাখবে।

১৯৭৬ সালে প্রতিষ্ঠিত বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড এখন ৫০টিরও বেশি দেশে ওষুধ রপ্তানি করছে।

অর্থসূচক/মাহমুদ

এই বিভাগের আরো সংবাদ