কর অব্যহতি সুবিধা পাচ্ছে ৪৩ বিদ্যুৎ কেন্দ্র
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

কর অব্যহতি সুবিধা পাচ্ছে ৪৩ বিদ্যুৎ কেন্দ্র

সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে পরিচালিত ৪৩টি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের আমদানিকৃত পণ্যের ঠিকাদারকে পরিশোধ করা মূল্যের উপর ও অর্জিত আয়ের উৎসে কর প্রদান থেকে অব্যহতি দিয়েছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। এই সুবিধা দিয়ে এনবিআর চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমান স্বাক্ষরিত একটি পরিপত্র জারি করা হয়েছে। এনবিআর সূত্রে এসব তথ্য জানা যায়।

ছবি সংগৃহীত

ছবি সংগৃহীত

সূত্রটি জানায়, গত ২৮ জুলাই এক আদেশের মাধ্যমে এ সংক্রান্ত একটি পরিপত্র জারি করা হয়। সেই আদেশে বলা হয়েছে, ‘যে সব বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী কোম্পানি, সরকারের সাথে যৌথ মালিকানায় বা অংশীদারিত্বে প্রতিষ্ঠিত এবং কর অব্যহতিপ্রাপ্ত, সে সব কোম্পানিকে তাদের নামে আমদানিকৃত পণ্য সামগ্রীর বিপরীতে ঠিকাদারকে পরিশোধযোগ্য মূল্যের উপর ও অর্জিত আয় হতে উৎসে আয়কর প্রদান হতে অব্যহতি দেওয়া হয়েছে।’

এনবিআর সূত্র আরও জানায়, ২০০৯ সাল পর্যন্ত সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে পরিচালিত মোট ৪৩টি বিদ্যুৎ কেন্দ্র চালু হয়েছে। এর মধ্যে সরকারি উদ্যোগে পরিচালিত ১৮টি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উৎপাদন ক্ষমতা ৩ হাজার ৮২৪ মেগাওয়াট এবং বেসরকারি উদ্যোগে স্থাপিত ২৫টি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উৎপাদনক্ষমতা ২ হাজার ১০৪ মেগাওয়াট। তবে এসব কেন্দ্র থেকে প্রকৃতপক্ষে উৎপাদন ক্ষমতার সমপরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদিত হয় না। পিক আওয়ারে সরকারি বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলো থেকে সর্বোচ্চ ৩ হাজার ৩৩১ এবং বেসরকারি বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলো থেকে ২ হাজার ০৪৫ মেগাওয়াটসহ সর্বোচ্চ ৫ হাজার ৩৭৬ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদিত হয়। আর এসব বিদ্যুৎ কেন্দ্রেই এ কর অব্যহতি সুবিধা প্রদান করা হলো।

স্বাধীনতা লাভের পরপর বাংলাদেশে ১১টি ইউনিট বিশিষ্ট ৭টি বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র ছিল। তবে নববই দশকের মাঝামাঝি সময় থেকে শিল্প-কারখানাগুলোতে নিজস্ব বিদ্যুৎ উৎপাদন ব্যবস্থা গড়ে তুলতে উৎসাহিত করতে প্রাইভেট পাওয়ার কোম্পানিগুলোকে নির্দিষ্ট শর্তে বিদ্যুৎ উৎপাদন করে জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

এ নীতির সুযোগ নিয়ে ইতোমধ্যে বেশ কয়েকটি বেসরকারি কোম্পানি বার্জ মাউন্টেড বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন করেছে। এগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- বাঘাবাড়ি, হরিপুর, খুলনা, ময়মনসিংহ ও মেঘনাঘাট বিদ্যুৎ কেন্দ্র।

অর্থসূচক/মেহেদী/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ