রুশ-মার্কিন হামলার ভয়ে আল-কায়েদা ছাড়লো নুসরা ফ্রন্ট
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » আন্তর্জাতিক

রুশ-মার্কিন হামলার ভয়ে আল-কায়েদা ছাড়লো নুসরা ফ্রন্ট

এক সময়ের দুর্ধর্ষ জঙ্গি সংগঠন আরেক দফা ভাঙ্গনের কবলে পড়েছে। সংগঠনটির সিরিয়ান শাখা নুসরা ফ্রন্ট আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করার ঘোষণা দিয়েছে। শুধু তা-ই নয়, নিজেদের নামও বদলে ফেলার ঘোষণা দিয়েছে সংগঠনের নেতারা। সংগঠনের নতুন নামকরণ করা হয়েছে জাবহাত ফাতাহ আল শামস। খবর বিবিসি, রয়টার্স ও গার্ডিয়ানের

Jabhat-Fatah-Abu-Al-julani

আল-কায়েদার সহযোগী সংগঠন নুসরা ফ্রন্টের নেতা আবু মোহাম্মদ আল উলানি

বৃহস্পতিবার নুসরা ফ্রন্টের এক নেতা আবু মোহাম্মদ আল জুলানি এক ভিডিও বার্তায় আল-কায়েদা ত্যাগ করার বিষয়টি প্রথম জানান। তিনি বলেন, আমরা নুসরা ফ্রন্টের কার্যক্রম বন্ধ করে দিয়েছি। তবে জিহাদের পথ ছাড়ছি না। আমরা জাবহাত ফাতাহ আল-শামস নামে নতুনভাবে কার্যক্রম শুরু করবো। এর সঙ্গে বিদেশী কোনো সংগঠনের সম্পর্ক থাকবে না।

খবরে জানা গেছে, ইতোমধ্যে আল-কায়েদা তার সঙ্গে নুসরা ফ্রন্টের সম্পর্ক ছিন্ন করার বিষয়টি স্বাভাবিকভাবে মেনে নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। আল-কায়েদার উপ-প্রধান আহমেদ হাসান আবু আল-খায়ের বলেছেন, আমরা নুসরা ফ্রন্টের নেতাদের সামনে এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানাই, যে পথ ইসলাম ও জিহাদকে সমুন্নত রাখবে।

এদিকে আল কায়েদা প্রধান আয়মান আল-জাওয়াহিরি এক ভিডিও বার্তায় বলেন, সাংগঠনিক সম্পর্কের চেয়ে ইসলামের ভাতৃত্ববোধ অনেক শক্তিশালী।

বিশ্লেষকদের ধারণা সম্প্রতি সিরিয়ায় বাশার সরকারের সমর্থনে সিরিয়ান বিদ্রোহী ও আইএসের উপর রাশিয়ান বোমা হামলা ওই অঞ্চলের দৃশ্যপট বদলে দিয়েছে। অন্যদিকে বিশ্বমোড়ল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রও রাশিয়ার সঙ্গে যৌথভাবে আল-কায়েদা ও আইএসের বিরুদ্ধে লড়াই করার আগ্রহের কথা জানিয়েছে। দুই পরাশক্তি শেষ পর্যন্ত একসঙ্গে মাঠে নামলে আইএস, নুসরা ফ্রন্টের টিকে কঠিন হয়ে পড়বে। এ বাস্তবতায় আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিয়ে রুশ-মার্কিন হামলার লক্ষ্যবস্তু হওয়ার শঙ্কা এড়াতে চাইছে সংগঠনটি।

বিশ্লেষকদের এই অভিমতের কিছুটা সমর্থন নুসরা ফ্রন্টের নেতা আবু মোহাম্মদ আল জুলানির বক্তব্যেও উঠে এসেছে। তিনি বলেছেন, আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক থাকায় তারা (নুসরা ফ্রন্ট) যুক্তরাষ্ট্রের হামলার অন্যতম প্রধান লক্ষ্যবস্তু ছিল। রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্র যৌথভাবে হামলা চালালে কঠিন পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে। আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক থাকার অজুহাতে তাদেরকে (নুসরা ফ্রন্ট) যাতে আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী সংগঠন আখ্যা দিয়ে তাদেরকে টার্গেট বানাতে না পারে, সে জন্যেই তারা আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করছেন।

তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী জিহাদ নয়, তাদের উদ্দেশ্য সিরিয়া ও ইরাকে খেলাফত প্রতিষ্ঠা।

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ