আমিরাতে বিমা চাপে প্রবাসীরা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

আমিরাতে বিমা চাপে প্রবাসীরা

আবুধাবির আমিরাতে স্বাস্থ্য বিমা নীতি পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দ্য হেলথ অথরিটি আবুধাবি (এইচএএডি)। বয়স ভিত্তিতে নতুন বিমা প্রিমিয়াম নির্ধারণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি। এতে চাপে পড়তে যাচ্ছে আমিরাতে বিভিন্ন কাজে নিয়োজিত নিম্ন আয়ের প্রবাসীরা।

প্রস্তাবিত স্বাস্থ্য বিমা নীতি অনুযায়ী, ৪০ বছর বয়সী কিংবা এর বেশি বয়সের কর্মীরা তাদের স্বাস্থ্য বিমা প্রিমিয়ামের ৫০ শতাংশ পরিশোধ করবেন। একইসঙ্গে পোষ্যদের স্বাস্থ্য বিমা প্রিমিয়ামের ৫০ শতাংশও তাদের পরিশোধ করতে হবে। বর্তমানে স্বাস্থ্য বিমা প্রিমিয়ামের সম্পূর্ণ অর্থ নিয়োগকারী ব্যক্তি বা সংস্থা কিংবা ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারী পরিশোধ করেন।

Emirate

আমিরাতের নতুন স্বাস্থ্য বিমা নীতি অনুযায়ী প্রিমিয়াম চার্ট।

গালফনিউজের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, স্বাস্থ্য বিমা প্রিমিয়ামে নতুন করে চার্জ যুক্ত হওয়া এবং কর্মীদের প্রিমিয়াম পরিশোধের বিধান রাখায় আমিরাতে বসবাসকারী নিম্ন আয়ের শ্রমজীবী মানুষের মধ্যে উদ্বেগ দেখা দিয়েছে। স্বাস্থ্য বিমা নীতি পরিবর্তনের প্রভাব সম্পর্কে অনেকে বুঝতে না পারলেও স্পন্সর বা কোম্পানির পক্ষ থেকে অতিরিক্ত ব্যয় আরোপ হতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন শ্রমিকরা। এই অতিরিক্ত ব্যয় বহন করা নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য কষ্টকর হবে।

গালফনিউজের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, আমিরাতের নাগরিক এবং প্রবাসী উভয়ের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য স্বাস্থ্য বিমার নিয়ন্ত্রণ করে দ্য ন্যাশনাল হেলথ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি (ড্যামেন)। বর্তমানে প্রাপ্ত প্রত্যেক ব্যক্তির জন্য ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারী কিংবা নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে ৬০০ দিরহাম পরিশোধ করতে হয়।

নতুন পরিকল্পনা অনুযায়ী, আউটডোর এবং ইনডোরে চিকিৎসার জন্য বার্ষিক ২ লাখ ৫০ হাজার দিরহাম (প্রায় সাড়ে ৫৩ লাখ টাকা) হিসাবে প্রিমিয়াম নির্ধারণ করেছে ড্যামেন। এতে ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারী কিংবা নিয়োগকারী ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে পরিশোধকৃত প্রিমিয়ামের পরিমাণ ৬০০ দিরহাম থেকে বাড়িয়ে সর্বনিম্ন ৮০০ দিরহাম (প্রায় ১৭ হাজার টাকা) করা হয়েছে; যার ৫০ শতাংশ অর্থাৎ ৪০০ দিরহাম (প্রায় সাড়ে ৮ হাজার টাকা) ব্যক্তিকে পরিশোধ করতে হতে পারে। তবে নতুন এই নিয়ম আমিরাতের নাগরিকদের ঘরে কর্মরত গৃহকর্মীদের জন্য প্রযোজ্য নয়।

দ্য হেলথ অথরিটি আবুধাবির (এইচএএডি) পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়েছে, ১৮ বছরের কম বয়সের শিশুদের জন্য প্রিমিয়াম ৮০০ দিরহাম (প্রায় ১৭ হাজার টাকা); ১৮ থেকে ৪০ বছর বয়স পর্যন্ত ব্যক্তিদের জন্য প্রিমিয়াম ১৫০০ দিরহাম (প্রায় ৩২ হাজার টাকা) নির্ধারণ করা হয়েছে। ৪১ থেকে ৬০ বছর বয়স পর্যন্ত ব্যক্তিদের প্রিমিয়াম ৩০০০ দিরহাম (প্রায় ৬৪ হাজার টাকা) এবং ৬০ বছরের বেশি বয়সের ব্যক্তিদের ১০ হাজার ৫০০ দিরহাম (প্রায় ২ লাখ ২৪ হাজার টাকা) প্রিমিয়াম নির্ধারণ করা হয়েছে। এর প্রতি ক্ষেত্রেই প্রিমিয়ামের ৫০ শতাংশ ব্যক্তিকেই বহন করতে হবে।

এছাড়া ১৮ থেকে ৫০ বছর পর্যন্ত বয়সের গর্ভবতী মহিলার ক্ষেত্রে স্বাস্থ্য বিমা প্রিমিয়াম নির্ধারণ করা হয়েছে ৭৫০ দিরহাম (প্রায় ১৬ হাজার টাকা); কর্মী এবং পোষ্য উভয়ের ক্ষেত্রে এটি প্রযোজ্য।

Labour, Abu Dhabi

আমিরাতে নিয়োজিত কয়েকজন শ্রমিক।

আবুধাবিতে প্রহরী হিসেবে নিয়োজিত এক ব্যক্তি বলেন, এটি আমার জন্য একটি বড় বোঝা। আমি এখনও জানি না, কীভাবে এই অতিরিক্ত ব্যয় আমি বহন করবো?

৫০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তি আরও বলেন, আমার মাসিক আয় মাত্র ৮০০ দিরহাম (প্রায় ১৭ হাজার টাকা)। বাবা, স্ত্রী ও পাঁচ সন্তান নিয়ে আমার পরিবার। মাসিক ৮০০ দিরহাম আয় চাকরি আমার পরিবারের ব্যয় বহনের জন্য যথেষ্ট নয়। আরও ৮০০ দিরহাম আয়ের জন্য আমাকে অস্বাভাবিক পরিশ্রম করতে হয়। প্রতি মাসে প্রায় ১৩০০ দিরহাম (প্রায় ২৮ হাজার টাকা) আমার পরিবারের খরচের জন্য পাঠাতে হয়। এরপর দৈনন্দিন ব্যয় এবং খাবারের জন্য অল্প কিছু অর্থ আমার কাছে থাকে।

নিজের ডায়াবেটিক রোগের প্রসঙ্গ টেনে ওই প্রবাসী বলেন, চিকিৎসকের কাছে না গিয়ে খরচ বাঁচাতে আমি নিজেকে সুস্থ রাখার চেষ্টা করি। আমার মতো নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য এটা খুবই কষ্টকর।

৪৮ বছর বয়সী এক প্রবাসী জানান, আমার মাসিক আয় ১৮০০ দিরহাম (প্রায় ৩৯ হাজার টাকা)। এর মধ্যে ১৬০০ দিরহামই (প্রায় ৩৪ হাজার টাকা) আমার পরিবারের মাসিক খরচের জন্য পাঠাতে হয়। আমার সন্তানদের শিক্ষা এবং আমার বাবা-মায়ের চিকিৎসা বাবদ অনেক অর্থ ব্যয় করতে হয়। প্রতি বছর স্বাস্থ্য বিমা বাবদ এতো অর্থ ব্যয় করা আমার পক্ষে সহজ নয়।

বেশিরভাগ নিয়োগকারী এবং ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীরা প্রবাসীদের ভিসা নবায়নের সময় বিমা প্রিমিয়াম পরিশোধ করেন। তাই যে সব শ্রমিকের ভিসা নবায়নের সময় খুব কাছে চলে এসেছে- তারাই এখন বেশি চিন্তিত।

অর্থসূচক/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ