‘মেসির প্রতি অবিচার করা হচ্ছে’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page
স্পেনে কর ফাঁকি

‘মেসির প্রতি অবিচার করা হচ্ছে’

কর ফাঁকির অভিযোগে বার্সালোনার আর্জেন্টাইন সুপারস্টার লিওনেল মেসিকে ২১ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন স্পেনের আদালত। একই অভিযোগে তার বাবা হোর্হে মেসিকেও একই মেয়াদের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি খুদে জাদুকরকে দুই মিলিয়ন এবং তার বাবাকে ১.৫ মিলিয়ন ইউরো জরিমানা করা হয়েছে। এসবের মাধ্যমে মেসির প্রতি অবিচার করা হচ্ছে বলে দাবি করেছেন বার্সালোনার মুখপাত্র জোসেপ ভিভেস।

বার্সালোনার মুখপাত্র জোসেপ ভিভেস। ছবি সংগৃহীত

বার্সালোনার মুখপাত্র জোসেপ ভিভেস। ছবি সংগৃহীত

এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, স্পেনে কর ফাঁকি নিয়ে লিওনেল মেসির প্রতি অবিচার করা হচ্ছে। তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যমূলক। এর ব্যাখ্যা আদালত দিতে পারছে না। তবে ক্লাব তার পাশেই থাকছে। এ বিষয়ে আমাদের অবস্থান পরিস্কার। এ নিয়ে আমরা তাকে সবসময় সমর্থন দিয়ে যাবো।

মেসি নির্দোষ দাবি করে জোসেফ ভিভেস বলেন, মানুষেল কল্যাণে কাজ করে অর্থ মন্ত্রণালয়। অর্থ সংক্রান্ত বিষয়াদিও দেখাশোনা করে এই মন্ত্রণালয়। কই তারা তো মেসির বিরুদ্ধে অভিযোগ আনেনি। কারণ, কর্তৃপক্ষ জানে তাকে অভিযুক্ত করার বৈধ ভিত্তি নেই। তার বিরুদ্ধে কর বিভাগের এই অভিযোগ একেবারে বানোয়াট। এর ব্যাখ্যা তাদের কাছেও নেই।

আদালতে ঢোকার পথে মেসি ও তার বাবা। ছবি: এবিসি নিউজ

আদালতে ঢোকার পথে মেসি ও তার বাবা। ছবি: এবিসি নিউজ

এদিকে শাস্তি পাওয়ার পর লিওনেল মেসির বার্সালোনা ছাড়ার গুজব রটে। তবে সেই গুজব উড়িয়ে দিয়েছেন ক্লাব মুখপাত্র। তিনি বলেন,  আমরা তার কাছের মানুষদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছি। লিওর ক্লাব ছাড়তে চাওয়ার বিষয়ে আমরা কিছুই জানি না। আসলে এখন সেই বিষয় নিয়ে কথা বলছি না। আমরা বলছি ১৯ বছরের মেসিকে নিয়ে।

মেসির ওই সময়ের কথা উল্ল্যেখ করে জোসেফ ভিভেস বলেন, ১৯ বছর বয়সে যখন ও এসব চুক্তি করে। তখন অর্থ সংক্রান্ত বিষয়ে তার মোটেই জ্ঞান ছিল না। শুধু ফুটবলেই তার মনোযোগ ছিল। অর্থ উপদেষ্টাদের উপর বিশ্বাস রেখে ও চুক্তিগুলোতে সই করে। তারাই তার হয়ে কাজ করেছে এবং অর্থ সংক্রান্ত বিষয়াদি দেখাশোনা করেছে।

প্রসঙ্গত, ২০০৭ ও ২০০৯ সালের মাঝামাঝি সময়ে ৪১ লাখ ইউরো কর ফাঁকির দায়ে লিওনেল মেসি এবং তার বাবা হোর্হে মেসিকে ২১ মাসের কারাদণ্ড ও জরিমানা করেছে স্পেনের আদালত।

অর্থসূচক/ডিএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ