‘বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্ক অবনতি হবে না’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

‘বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্ক অবনতি হবে না’

সম্মিলিত মূল্যবোধের ভিত্তিতে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক বজায় রেখে চলতে যুক্তরাষ্ট্র অঙ্গীকারবদ্ধ বলে জানিয়েছেন ঢাকা সফররত যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী নিশা দেশাই বিসওয়াল।

আজ সোমবার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে এক বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের কাছে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি। একইসঙ্গে সন্ত্রাসবাদ দমনে সক্ষমতা অর্জনে বাংলাদেশকে বিশেষজ্ঞ সহায়তা দিতে যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে প্রস্তাব দিয়েছেন নিশা দেশাই।

Nisha Dishai & Home Minister

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল এবং যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী নিশা দেশাই বিসওয়াল।

বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল সাংবাদিকদের জানান, বাংলাদেশের কোন কোন ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্রের সহযোগিতা দরকার- প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তা তাদের জানানো হবে।

তিনি বলেন, সম্প্রতি জঙ্গি হামলায় নিহত ব্যক্তিদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন নিশা দেশাই। বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকদের নিরাপত্তায় আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর নিরন্তর প্রচেষ্টার সাধুবাদ জানিয়েছেন তিনি।

এর আগে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে একান্ত বৈঠক করেন যুক্তরাষ্ট্রের মধ্য ও দক্ষিণ এশিয়াবিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী নিশা দেশাই বিসওয়াল ও ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাট।

এরপর মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে যুক্তরাষ্ট্রের একটি প্রতিনিধিদলের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এসময় নিশা দেশাই, মার্শা বার্নিকাট, র‍্যাবের ডিজি বেনজীর আহমেদ, ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া, যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়াবিষয়ক উপসহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মানপ্রীত আনন্দ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারি রেস্তোরাঁ পরিদর্শন করেন নিশা দেশাই বিসওয়াল। আজ সোমবার সকাল ১১টার দিকে ওই রেস্তোরাঁয় যাওয়ার পর সেখানে প্রায় ২০ মিনিট অবস্থান করেন তিনি।

হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁ পরিদর্শন শেষে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে যান নিশা দেশাই। সেখানে প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা বিষয়ক উপদেষ্টা মেজর জেনারেল (অবসরপ্রাপ্ত) তারিক আহমেদ সিদ্দিকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, গত ১ জুলাই রাতে ঢাকার গুলশানের রেস্তোরাঁ হলি আর্টিজান বেকারিতে দেশি-বিদেশি নাগরিকদের জিম্মি করে সন্ত্রাসীরা। ওই রাতে উদ্ধার অভিযান শুরুর আগে জঙ্গিদের গুলিতে দুই পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যু হয়। এর প্রায় ১০ ঘণ্টা পর সেখানে উদ্ধার অভিযান চালিয়ে ১৩ জনকে জীবিত উদ্ধার করে যৌথ বাহিনীর সদস্যরা। এছাড়া ৬ হামলাকারীসহ ২৬ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয় ওই রেস্তোরাঁ থেকে। হামলাকারীরা হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় ২০ জনকে হত্যা করে। এদের মধ্যে ইতালির ৯ জন, জাপানের ৭ জন, বাংলাদেশি ৩ জন এবং ভারতের একজন নাগরিক ছিলেন।

অর্থসূচক/এস/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ