কাবায় ইতিকাফে বসেছেন ৫০ হাজার মুসল্লি
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

কাবায় ইতিকাফে বসেছেন ৫০ হাজার মুসল্লি

মক্কার মসজিদ-উল-হারামে এই রমজানে ৫০ হাজারেরও বেশি ধর্মপ্রাণ মুসল্লি ইতিকাফ পালন করছেন। রমজানের শেষ দিন পর্যন্ত তারা মহান রাব্বুল আলামিন আল্লাহ তা’আলার নৈকট্য লাভের আশায় তা পালন করতে থাকবেন।

মক্কার মসজিদ-উল-হারামে এই রমজানে ৫০ হাজারেরও বেশি ধর্মপ্রাণ নারী-পুরুষ ইতিকাফ পালন করছেন। ছবি সংগৃহীত

মক্কার মসজিদ-উল-হারামে এই রমজানে ৫০ হাজারেরও বেশি ধর্মপ্রাণ নারী-পুরুষ ইতিকাফ পালন করছেন। ছবি সংগৃহীত

এক ধর্মীয় বিশেষজ্ঞ বলছেন, রমজানের শেষ ১০ দিন এসব ধর্মভীরু মুসলমান কোনো অপরিহার্য কাজ ছাড়া পার্থিব উদ্দেশ্যে বাইরে যাবেন না। এ ক’টা দিন তারা শুধু পবিত্র গ্রন্থ আল কোরআন পড়ে, দোয়া দুরূদ করে ও নামায বন্দেগী করে সময় কাটাবেন। এর একটাই উদ্দেশ্য থাকবে আল্লাহর নিকট ক্ষমা ও আশীর্বাদ প্রার্থনা।

আজ মঙ্গলবার সৌদি গেজেটের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, গ্র্যান্ড মসজিদে ইতিকাফ পালনকারীদের মধ্যে রয়েছেন আবাল-বৃদ্ধা-বণিতা সকলে। তারা পারলৌকিক শান্তি পাওয়ার আশায় সম্পূর্ণ ১০টা দিন ইবাদত বন্দেগির মধ্য দিয়ে কাটাচ্ছেন। ভীড় এড়াতে ও পছন্দ মতো জায়গা পেতে এদের অনেকেই গত বৃহস্পতিবার, আবার অনেকে গত শুক্রবার থেকে ইতিকাফ পালন শুরু করেছেন।

ইতিকাফের জন্য এবার গ্রেট মসজিদের দুটি ফ্লোর বরাদ্দ দিয়েছেন কর্তৃপক্ষ। একটি হলো দ্বিতীয় ফ্লোর কিং আব্দুল্লাহ অ্যানেক্স ও আন্ডারগ্রাউন্ড ফ্লোর কিং ফাহাদ অ্যানেক্স।

সম্প্রতি তা পরিদর্শন করেছেন সৌদি গেজেটের সাংবাদিকরা। তারা বলছেন, ইতিকাফ পালনকারীদের কাছে রয়েছে একটি বালিশ, একটি কম্বল, একটি মোবাইল ফোন ও একটি কার্ড। কার্ড দিয়ে এরা প্রয়োজনীয় সম্পদ লক করে রাখেন, আবার প্রয়োজনে খোলেন। এভাবেই ইতিকাফ পালন করছেন আল্লাহ ভীরু মুসলিমরা।

এদের মধ্যে সিরিয়ার নাগরিক আহমেদ সেলিম বলেন, আমি গত ১৫ রমজান থেকে কাবায় অবস্থান করছি। এই মসজিদে আমি গত ২৫ বছর ধরে ইতিকাফ পালন করে আসছি। এবার দুই সন্তান নিয়ে এসেছি।

কাবা শরিফ কর্তৃপক্ষ বলছে, ইতিকাফ পালনকারীদের এবার ২ হাজার লকার দেওয়া হয়েছে। ইতিকাফের জন্য যে দুটি ফ্লোর নির্ধারণ করা হয়েছে; সেখানে ১ লাখ মানুষ ইতিকাফ পালন করতে পারবেন। তাছাড়া ইতিকাফ পালনে তাদের সবকিছু যোগান দেওয়া হয়েছে।

অর্থসূচক/ডিএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ