মিৎসুবিশির লোকসান ১৪০ কোটি ডলার!
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

মিৎসুবিশির লোকসান ১৪০ কোটি ডলার!

মাইলেজ প্রতারণার দায়ে চলতি অর্থবছরে ১৪০ কোটি ডলার লোকসান গুণতে হবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে মিৎসুবিশি।

মাইলেজ প্রতারণার দায়ে চলতি অর্থবছরে ১৪০ কোটি ডলার লোকসান গুণতে হবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে মিৎসুবিশি। ছবি সংগৃহীত

মাইলেজ প্রতারণার দায়ে চলতি অর্থবছরে ১৪০ কোটি ডলার লোকসান গুণতে হবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে মিৎসুবিশি। ছবি সংগৃহীত

আজ বৃহস্পতিবার ভারতের শীর্ষস্থানীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়ার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

জাপানি গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি বলছে, দীর্ঘ ৮ বছর পর এই প্রথম কোনো অর্থবছরে লোকসান গুণতে হচ্ছে। বিশ্লেষকরা যে পূর্বাভাস দিয়েছিলেন এর পরিমাণ তার চেয়ে প্রায় দ্বিগুণ।

জাপানে ছোট মডেলের মিনিকার ব্যাপক জনপ্রিয়। বেশি মাইলেজ দেখিয়ে সেগুলো গত কয়েক দশক ধরে বিক্রি করে আসছিল মিৎসুবিশি। সম্প্রতি সে কথা স্বীকার করেছে টোকিওভিত্তিক প্রতিষ্ঠানটি। সেই স্বীকারোক্তির দুই মাস পর এ আশঙ্কার কথা জানাল তারা।

মাইলেজ কেলেঙ্কারির পর দেশের অভ্যন্তরে ছোট গাড়ি বিক্রি করা বন্ধ করে দেয় মিৎসুবিশি। তাছাড়া একই কারণে বিশ্ব বাজারে তাদের গাড়ি বিক্রিও উল্লেখযোগ্য হারে কমে যায়। ফলে প্রতিষ্ঠানটির ব্যবসায় ভাটা পড়ে। এ কারণেই লোকসান গুণতে হচ্ছে প্রতিষ্ঠানটিকে।

ইতোমধ্যে  ক্রেতাদের আস্থা ফিরিয়ে আনতে নানামুখী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে মিৎসুবিশি। এর মধ্যে রয়েছে বিভিন্ন অঞ্চল থেকে সামান্য ত্রুটিপূর্ণ গাড়ি প্রত্যাহার ও ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতি পুষিয়ে দেওয়া। এর অংশ হিসেবে কয়েকদিন আগে নিশানকে ১০০ বিলিয়ন ইয়েন ও ক্ষতিগ্রস্ত ক্রেতাদের ৫০ বিলিয়ন দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

অর্থসূচক/ডিএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ