শিক্ষিকার সঙ্গে হাত না মেলালে ৫০০০ ডলার জরিমানা!
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » App Home Page

শিক্ষিকার সঙ্গে হাত না মেলালে ৫০০০ ডলার জরিমানা!

সুইজারল্যান্ডে শিক্ষিকাদের সঙ্গে মুসলিম ছাত্ররা হাত মেলাতে অসম্মতি জানালে তাদের পাঁচ হাজার ডলার জরিমানা করার নির্দেশ দিয়েছে দেশটির উত্তরাঞ্চলের শিক্ষা কর্তৃপক্ষ।

সুইজারল্যান্ডে শিক্ষিকাদের সঙ্গে মুসলিম ছাত্ররা হাত মেলাতে অসম্মতি জানালে তাদের পাঁচ হাজার ডলার জরিমানা করার নির্দেশনা জারি করেছে দেশটির উত্তরাঞ্চলের শিক্ষা কর্তৃপক্ষ। ছবি সংগৃহীত

সুইজারল্যান্ডে শিক্ষিকাদের সঙ্গে মুসলিম ছাত্ররা হাত মেলাতে অসম্মতি জানালে তাদের পাঁচ হাজার ডলার জরিমানা করার নির্দেশনা জারি করেছে দেশটির উত্তরাঞ্চলের শিক্ষা কর্তৃপক্ষ। ছবি সংগৃহীত

গত মাসে ধর্মীয় যুক্তি দেখিয়ে দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় শহর থেরউইল এর একটি স্কুলের শিক্ষিকাদের সঙ্গে দুই মুসলিম ছাত্র হাত মেলাতে অসম্মতি জানানোর পরিপ্রেক্ষিতে এ নির্দেশ দিল আঞ্চলিক কর্তৃপক্ষ।

এর আগে একই ঘটনায় ওই দুই ছাত্রের পরিবারের নাগরিকত্ব স্থগিত করে সুইজারল্যান্ড।

সম্প্রতি বিবিসি ও ইউএসটুডেসহ একাধিক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, সুইজারল্যান্ডে ক্লাসের শুরুতে ও শেষে সব শিক্ষার্থীদের সঙ্গে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের হাত মেলানোর সংস্কৃতি অনেক পুরনো। ফলে গত মাসে ওই স্কুলের শিক্ষিকাদের সঙ্গে মুসলিম ছাত্ররা হাত মেলাতে অসম্মতি জানালে দেশব্যাপী সমালোচনার ঝড় উঠে।

সিরিয় ওই দুই ছাত্রের বয়স ১৪ ও ১৫ বছর। তারা সম্পর্কে আপন ভাই। তাদের বাবা সিরিয়ায় ইমামতি করতেন। ২০০১ সালে তিনি পরিবার নিয়ে সুইজারল্যান্ডে যান এবং সেখানে আশ্রয় গ্রহণ করেন।

গত মাসে ওই স্কুলের শিক্ষিকাদের সঙ্গে তাদের হাত না মেলানোর যুক্তি ছিল, কোনো নারীর সঙ্গে হাত মেলানো ইসলাম ধর্ম বিরোধী। এ ধর্ম মতে, শুধু পরিবারের বিপরীত লিঙ্গের ব্যক্তির সঙ্গে হাত মেলানো যায়।

ওই সময় আঞ্চলিক শিক্ষা অফিসের কর্মকর্তারা লিঙ্গ বৈষম্য এড়াতে সেই দুই কিশোরকে শিক্ষকদের সঙ্গেও হাত মেলানো থেকে বিরত থাকার কথা বলেন। তবে তা নিয়ে ঘোর বিরোধীতা করেন রাজনীতিবিদরা। তারা বলেন, একে অপরের সঙ্গে হাত মেলানো তাদের দেশীয় সংস্কৃতির একটি অংশ।

প্রসঙ্গত, সুইজারল্যান্ডে মোট ৮০ লাখ জনসংখ্যার মধ্যে প্রায় ৩ লাখ ৫০ হাজার মুসলিম।

অর্থসূচক/ডিএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ