৩০১ কোটি টাকা আত্মসাত করেছে এমএলএম কোম্পানি ম্যাক্সিম ফাইন্যান্স
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » জাতীয়

৩০১ কোটি টাকা আত্মসাত করেছে এমএলএম কোম্পানি ম্যাক্সিম ফাইন্যান্স

প্রতারণা করে গ্রাহকদের ৩০০ কোটি ৯৩ লাখ টাকা আত্মসাত করেছে এমএলএম কোম্পানি ম্যাক্সিম ফাইন্যান্স অ্যান্ড কমার্স মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটি লিমিটেড।

দুর্নীতি দমন কমিশনের লোগো। ছবি সংগৃহীত

দুর্নীতি দমন কমিশনের লোগো। ছবি সংগৃহীত

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) তদন্তে এই বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাতের বিষয়টি প্রমাণিত হওয়ায় কোম্পানিটির চেয়ারম্যান, এমডি ও পরিচালকসহ ২১ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট (অভিযোগপত্র) দিচ্ছে সাংবিধানিক এই প্রতিষ্ঠানটি।

আজ বুধবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে এ চার্জশিট অনুমোদন দেয় কমিশন।

দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রনব কুমার ভট্টাচার্য্য অর্থসূচককে বলেন, গ্রাহকদের ৩০০ কোটি ৯৩ লাখ টাকা আত্মসাত করায় এমএলএম কোম্পানি ম্যাক্সিম ফাইন্যান্স এর ২১ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিলের অনুমোদন দিয়েছে কমিশন। শিগগিরই দুদকের উপপিরচালক ও তদন্ত কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন বিচারিক আদালতে এই চার্জশিট দাখিল করবেন।

অনুমোদিত চার্জশিটভুক্ত আসামিরা হলেন- ম্যাক্সিম ফাইন্যান্স অ্যান্ড কমার্স মাল্টি পারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটি লিমিটেডের চেয়ারম্যান মুহাম্মদ মফিজুল হক, ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান, পরিচালক মুহাম্মদ হাবিবুর রহমান, মোস্তাফিজুর রহমান, খায়রুল বাশার সজল, আব্দুল হান্নান সরকার, সৈয়দ শরিফুল ইসলাম, এইচ এম আমিরুল ইসলাম, মো. ওলিয়ার রহমান, ফজলুর রহমান, মো. আসাদুজ্জামান তপন, মোহাম্মদ সোলাইমান সরোয়ার, মো. হারুন অর রশিদ, শেখ আব্দুল্লাহ আল মেহেদী, সৈয়দ জাহিদুল ইসলাম, মো. মনোয়ার হোসেন, এমএ সাদী, মো. আসলাম হোসাইন, মো. মেহেদী হাসান মোজাফ্ফর, মো. ইমতিয়াজ হোসেন কাউসার এবং মো. মিজানুর রহমান।

অর্থসূচক/মাইদুল/ডিএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ