গ্যাসের দাম বাড়ছে
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » জ্বালানি-বিদ্যুৎ

 গ্যাসের দাম বাড়ছে

ফের গ্যাসের দাম বাড়ছে। বাসাবাড়ি, শিল্পকারখানা, সিএনজি-সব খাতেই দাম বাড়ানো হচ্ছে। ইতোমধ্যে দেশের ছয়টি গ্যাস বিতরণ কোম্পানি দাম বাড়ানোর প্রস্তাব পাঠিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) কাছে। গড়ে ৮৭ দশমিক ৬৬ শতাংশ দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। বিইআরসি শিগগিরই এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে।

মাত্র ৭ মাস আগে, গত বছরের ২৭ আগস্ট সার উৎপাদন ছাড়া বাকী সব খাতে গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়েছিল, যা ১ সেপ্টেম্বর থেকে কার্যকর হয়। তখন গড়ে দাম বাড়ানো হয় ২৬ দশমিক ২৯ শতাংশ।

এর আগে আওয়ামীলীগ সরকারের মেয়াদেই ২০০৯ সালের ১ আগস্ট গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়।

সংশ্লিষ্টরা মনে করছেন, কোম্পানিগুলোর দেওয়া প্রস্তাব অনুসারে দাম না বাড়লেও কিছু না কিছু বাড়বেই।

সিঙ্গেল চুলার মাসিক মূল্য ১১০০ টাকা এবং ডাবল চুলার মূল্য ১২০০ টাকা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে

জানা গেছে,  প্রস্তাবে বাসাবাড়িতে একক চুলার (single burner) মাসিক মূল্য ৬০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১১০০ টাকা এবং দ্বিমুখী চুলার (double burners) মূল্য ৬৫০ টাকা থেকে ১২০০ টাকা করার কথা বলা হয়েছে।

যানবাহনে ব্যবহৃত সিএনজি গ্যাসের দাম ৮৩ শতাংশ বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে।

বিদ্যুৎ কেন্দ্রের গ্যাসের দাম ২ টাকা ৮২ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৪ টাকা ৬০ পয়সা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। এখানে দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে ৬৩ শতাংশ।

শিল্পকারখানায় নিজস্ব বিদ্যুৎ উৎপাদনে (captive power) ব্যবহৃত গ্যাসের দাম ১৩০ শতাংশ বাড়িয়ে ৮ টাকা ৩৬ পয়সা থেকে ১৯ টাকা ২৬ পয়সা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।

প্রস্তাবে শিল্পকারখানায় ব্যবহৃত গ্যাসের দাম ৬ টাকা ৭৪ পয়সা থেকে ১০ টাকা ৯৫ পয়সা, বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের গ্যাস দাম ১১ টাকা ৩৬ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১৯ টাকা ৫০ পয়সা করার কথা বলা হয়েছে।

এই বিভাগের আরো সংবাদ