‘চাল রপ্তানিতে নতুন বাজার খুঁজছে বাংলাদেশ’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » লিড নিউজ

‘চাল রপ্তানিতে নতুন বাজার খুঁজছে বাংলাদেশ’

বিশ্বে চাল উৎপাদনে বাংলাদেশ চতুর্থ স্থানে আছে উল্লেখ করে খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম জানিয়েছেন, চাল রপ্তানি বাড়াতে আফ্রিকার দেশগুলোতে নতুন বাজার খোঁজা হচ্ছে।

Food Fair_1

খাদ্যপণ্য ও কৃষিজাত উপকরণের ৩টি আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম। ছবি মহৃবার রহমান

আজ বুধবার সকাল ১১টায় রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ৪ দিনব্যাপী খাদ্যপণ্য ও কৃষিজাত উপকরণের ৩টি আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা জানান।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ এখন চাল রপ্তানিকারক দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত। এখন আমরা বছরে এক-দুই লাখ টন চাল রপ্তানি করতে পারি। সম্প্রতি শ্রীলংকায় চাল রপ্তানি করেছি। এখন আফ্রিকার দেশগুলোতে চালের নতুন বাজার খোঁজা হচ্ছে।

মিঠাপানির মাছ উৎপাদনে বাংলাদেশ ৫ম স্থানে রয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের দিক থেকে পোশাক এবং জনশক্তির পরই মাছ এবং শাক-সবজির অবস্থান। পশ্চিমা দেশগুলোতে আমাদের মাছ এবং শাক-সবজির প্রচুর চাহিদা রয়েছে।

কামরুল ইসলাম বলেন, দেশে নিরাপদ খাদ্য আইন কার্যকর হচ্ছে। আগামী মাসেই নিরাপদ খাদ্য আইন কর্তৃপক্ষ মাঠে নামছে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির অ্যাক্টিং প্রেসিডেন্ট হুমায়ুন রশিদ এবং আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স ইন বাংলাদেশের ভাইস প্রেসিডেন্ট শওকত আলী সরকার।

বাংলাদেশ, ভারত, চীন, জাপান, জার্মানি, জর্ডান, মালয়েশিয়াসহ বিভিন্ন দেশ থেকে প্রায় ২৫০টি দেশি-বিদেশি প্রতিষ্ঠান এই প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ করেছে। এতে খাদ্যপণ্য, পানীয়, কৃষিজাত পণ্য, পোল্ট্রি পণ্য, বিভিন্ন ধরণের কৃষি উপকরণ, পণ্য প্রক্রিয়াজাতকরণ মেশিনারিজ, রাসায়নিক উপকরণসহ বিভিন্ন ধরনের প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি প্রদর্শন এবং বিক্রয়ের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কনফারেন্স অ্যান্ড এক্সিভিশন ম্যানেজমেন্ট সার্ভিসেস লিমিটেড সেমস গ্লোবাল আয়োজিত এই প্রদর্শনী প্রতিদিন সকাল সাড়ে ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে।

অর্থসূচক/এমএইচ/এসএম

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ