‘ক্ষমতাসীনরা রিজার্ভ চুরির কলকাঠি নেড়েছেন’
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » লিড নিউজ

‘ক্ষমতাসীনরা রিজার্ভ চুরির কলকাঠি নেড়েছেন’

ক্ষমতাসীনরা বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে রিজার্ভের টাকা চুরির কলকাঠি নেড়েছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয়তাবাদী সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি আ.স.ম. আব্দুর রব।

আজ সোমবার জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হকের স্মরণে আয়োজিত আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি।

আব্দুর রব বলেন, যারা ক্ষমতায় রয়েছেন তারাই কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে টাকা চুরির কলকাঠি নেড়েছেন। এদেরকে ধরলেই চুরির টাকা ফেরৎ পাওয়া যাবে।

তিনি বলেন, ড. আতিউর রহমান কেন প্রধানমন্ত্রীর কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন? এক মাস কেন তিনি এ বিষয়টি গোপন রেখেছিলেন? এই চুরির সঙ্গে এমন কিছু কর্মকর্তা জড়িত যে, আতিউর রহমানও তাদের নাম প্রকাশ করতে ভয় পাচ্ছেন।

জাতীয়তাবাদী সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি বলেন, চুরির দুই সপ্তাহ আগে থেকে কারা সিসি টিভি ক্যামেরা বন্ধ করে রেখেছিল? বন্ধের দিনে কাজ করতে যারা ব্যাংকে গিয়েছিল- তাদেরকে আগে ধরতে হবে। রিজার্ভ ব্যাংকের নিরাপত্তা এতো কঠিন যে নির্দিষ্ট বাহকের আঙ্গুলের ছাপ ছাড়া কোনো ধরনের লেনদেন হয় না। তাহলে সেখানে কার আঙ্গুলের ছাপ রয়েছে?

চুরির তদন্তে চোরকেও তদন্তকারী হিসেবে রাখা হয়েছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

ড. আতিউর রহমান কেন প্রধানমন্ত্রীর কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন? এক মাস কেন তিনি এ বিষয়টি গোপন রেখেছিলেন? এই চুরির সঙ্গে এমন কিছু কর্মকর্তা জড়িত যে, আতিউর রহমানও তাদের নাম প্রকাশ করতে ভয় পাচ্ছেন।

সার্জেন্ট জহুরুল হক প্রসঙ্গে আব্দুর রব বলেন, গত ৪৫ বছরে এ দেশে অনেকেই ক্ষমতায় এসেছেন। কিন্তু স্বাধীনতা অর্জনে যাদের অবদান অনেক বেশি ছিল- তাদের কেউই স্মরণ করেননি। শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক কিংবা আগরতলা মামলায় জড়িতদের কখনও সম্মান জানানো হয়নি। এমনকি ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর তাদের কথা কেউ মনেই রাখেননি।

সার্জেন্ট জহুরুল হকের পরিবারের সদস্য নাজনিন হক মিমি বলেন, আমরাই ইতিহাসকে বিকৃত করছি। আগরতলা মামলাকে আমরা আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা বলি। কিন্তু স্বাধীন বাংলাদেশে একে আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা বলা উচিত না। ওই মামলাকে ষড়যন্ত্র মামলা বলবে শুধু পাকিস্তানিরা।

মাসিক উর্মির সম্পাদক শাহাদত হোসেন সেলিমের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন শাহজাহান সিরাজ, নূরে আলম সিদ্দিকী প্রমুখ।

অর্থসূচক/এমআই/এমই/

এই বিভাগের আরো সংবাদ