এসএমই টেকসই উন্নয়নের চাবিকাঠি
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » ব্যাংক-বিমা

এসএমই টেকসই উন্নয়নের চাবিকাঠি

টেকসই উন্নয়নের চাবিকাঠি হিসেবে এসএমই খাতে কেন্দ্রীয় ব্যাংক আর্থিক ও নীতিগত সহযোগিতা দিয়ে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন গভর্নর আতিউর রহমান। শনিবার রাজধানীতে বাংলাদেশে এসএমই‘র উন্নয়ন শীর্ষক এক আন্তর্জাতিক কনফারেন্সে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য প্রদানকালে তিনি এ কথা জানান। সাউথইস্ট ইউনিভার্সিটি এ কনফারেন্সের আযোজন করে।

অনুষ্ঠানে আতিউর বলেন, এসএমই খাত একটি দেশের টেকসই উন্নয়নের মূল চাবিকাঠি। আমাদের দেশেও মোট ক্রেডিট পোর্টফোলিওর ২৪ শতাংশ, মোট শ্রমশক্তির ২৫ শতাংশ, জিডিপির ৩২ শতাংশ, চাকরি-বাকরির ৪০ শতাংশ এবং শিল্পের চাকরিতে ৮০ শতাংশ সরাসরি এমএসএমইর সাথে সম্পৃক্ত। এদিকে চাহিদা ও যোগানে আমরা ভালো অবস্থানে রয়েছি।

তিনি বলেন, বৈশ্বিক মন্দা আমাদের মনে করিয়ে দেয় যে,দুটি জিনিসে খুব বেশি গুরুত্ব দিতে হবে। একটি হল রপ্তানি, অন্যটি অভ্যন্তরীন চাহিদা। আমাদের দেশে দুটি ক্ষেত্রই ভালোভাবে কাজ করছে। এসএমইর জন্যই এটা সম্ভব হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, আমাদের তরুণ জনগোষ্ঠী রয়েছে। তাদের প্রয়োজন ভালো মানের কর্মসংস্থান। এর জন্য আর্থিক খাতকে কৃষি, এমএসএমই (মাইক্রো, ক্ষুদ্র এবং মাঝারি শিল্প), নারী উদ্যোক্তা ও সবুজ অর্থায়নে বেশি বেশি সহযোগিতা করতে বলা হচ্ছে। এজন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক এসএমইতে নীতি এবং অর্থিক সহযোগিতা দিয়ে যাচ্ছে।

ব্যাংক ও আর্থিক খাতগুলো ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের মোট এসএমই ঋণের ৪০ শতাংশ দিয়ে যাচ্ছে বলেও বক্তব্যে উল্লেখ করেন গভর্নর।

সাউথইস্ট ইউভার্সিটির উপাচার্য আনোয়ার হোসাইনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মদ্যে সিরডাপের মহাপরিচালক সেসেপ ইফেন্দি, বিআইবিএমের মহাপরিচালক তৌফিক আহমেদ চৌধুরী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

এসবি

এই বিভাগের আরো সংবাদ