বইমেলায় ১৩৯৩ টি নতুন বই
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » নতুন বই

বইমেলায় ১৩৯৩ টি নতুন বই

অমর একুশে গ্রন্থমেলার ১২তম দিন আজ। এবারের মেলায় এ পর্যন্ত নতুন বই প্রকাশিত হয়েছে এক হাজার ৩৯৩ টি । যার মধ্যে সর্বোচ্চ ২৮০ টি বই এসেছে আজ।

Book Fair Shishu

ছবি: মহুব্বর রহমান

আজ শুক্রবার ছুটির দিনে বইমেলায় ছিল উপচে পড়া ভিড়। সকাল ১১টায় শিশুপ্রহরের মাধ্য দিয়ে বইমেলা শুরু হয় এক ভিন্ন আমেজে। এরপর আস্তে আস্তে সকল বয়সী মানুষের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে অমর একুশে বইমেলা।

বাংলা একাডেমির তথ্য অনুযায়ী, এবারের বইমেলায় এ পর্যন্ত ৪৫ টি গল্প, ৪৩ টি উপন্যাস, ১৭টি প্রবন্ধ, ৮৩টি কবিতা, ১১টি ছড়া, ৪টি শিশুসাহিত্য, ৪টি জীবনী, ১১টি মুক্তিযুদ্ধ, ৩টি বিজ্ঞান, ৪টি ভ্রমণ, ৪টি স্বাস্থ্য, ৩টি কম্পিউটার, ২টি রম্য/ধাঁধা, ২টি ধর্মীয়, ৫টি অনুবাদ, ১৩টি সায়েন্স ফিকশন ও ২০টি অন্যান্য বই প্রকাশিত হয়েছে ।

বইমেলার তথ্যকেন্দ্র থেকে জানা যায়, ২০১৬ সালের মেলায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি বই এসেছে আজ। যার মধ্যে ৮৩টিই এসেছে কবিতার বই। এ হিসেবে আজ কবিতার বইও এসছে সর্বাধিক।  শুক্রবার সবচেয়ে বেশি বইয়ের মোড়কও উন্মোচিত হয়েছে। যার সংখ্যা প্রায় ২৫টি।

মেলার ১২তম দিনে উল্লেখযোগ্য বইগুলোর মধ্যে রয়েছে, অনিন্দ্য থেকে মোহিত কামালের কিশোর উপন্যাস ‘দুখু’, রহীম শাহ’র ‘আকডুম ছড়া বাগডুম ছড়া’, সুকুমার বড়ুয়ার ছড়া ‘এমন যদি হতো’, মনি হায়দারের ‘বঙ্গবন্ধু ও রাসেলের গল্প’, সেলিনা হোসেনের শিশুতোষ উপন্যাস ‘রাসেলের জন্য অপেক্ষা’।

শিশুদের সাধারণ জ্ঞান ও বক্তৃতা প্রতিযোগিতা শনিবার

আগামীকাল ১৩ ফেব্রুয়ারি শনিবার গ্রন্থমেলা শুরু হবে সকাল ১১:০০টায় এবং চলবে রাত ৮:০০টা পর্যন্ত। অমর একুশে উদযাপন উপলক্ষে সকাল ১০টায় বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হবে শিশুকিশোর সাধারণ জ্ঞান ও উপস্থিত বক্তৃতা প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্ব।

আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানঃ

আগামীকাল বিকেল ৪টায় গ্রন্থমেলার মূলমঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে ‘বাংলাদেশে মুক্তিযুদ্ধচর্চা: অতীত থেকে বর্তমান’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান। এতে প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন অধ্যাপক মেসবাহ কামাল। আলোচনায় অংশগ্রহণ করবেন ইতিহাসবিদ অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন, ড. মোহাম্মদ সেলিম এবং দিব্যদ্যুতি সরকার। সভাপতিত্ব করবেন বিশিষ্ট লেখক অধ্যাপক সনৎকুমার সাহা। সন্ধ্যায় রয়েছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

অর্থসূচক/এসএমএস/এমএইচ

এই বিভাগের আরো সংবাদ